কোরবানির বর্জ্য অপসারণে প্রস্তুত সিসিক

ফাইল ছবি

সিলেটের সকাল রিপোর্ট ।। করোনা পরিস্থিতির মধ্যে সরকার কর্তৃক নির্দেশিত স্বাস্থ্যবিধি মেনে নির্ধারিত স্থানে পশু কোরবানি করতে নগরবাসীর প্রতি আহ্বান জানিয়েছে সিলেট সিটি কর্পোরেশন।। গত বছরের ন্যায় এবছরও ঈদুল আজহার দিনে কোরবানির পশুর বর্জ্য ২৪ ঘন্টার মধ্যেই অপসারণ করা হবে। এজন্য অতিরিক্ত জনবল, যানবাহনসহ অন্যান্য সরঞ্জাম প্রস্তুত রাখা হয়েছে।

শুক্রবার সিসিকের জনসংযোগ শাখা থেকে প্রেরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী বলেন, ‘নগরীর ২৭ ওয়ার্ডের ৩০টি স্থানে কোরবানির উপযোগী সুবিধা নিশ্চিত করা হয়েছে। সিসিকের নির্ধারিত স্থানে পশু কোরবানি দেওয়া ও কোরবানির বর্জ্য রাস্তাঘাটে, ড্রেনে, খাল বা ছড়ায় ফেলবেন না। কোরবানি শেষে দ্রুত বর্জ্য অপসারণে সিসিক পর্যাপ্ত প্রস্তুতি নিয়েছে।’

নগর পরিচ্ছন্ন রাখতে সকলের সহযোগিতা কামনা করে নির্ধারিত স্থানে কোরবানি দেওয়ার অনুরোধ জানিয়ে মেয়র বলেন, ‘যদি নির্ধারিত স্থানে কোনও কারণে কোরবানি দেয়া সম্ভব না হয় তাহলে যেখানেই করবেন সেখানে পানি কিংবা রক্ত সংরক্ষণে রাখবেন। ড্রেন বা নালায় কোরবানীর বর্জ্য না ফেলতেও অনুরোধ জানান তিনি।’

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, কোরবানির বর্জ্য অপসারণে নগরীর ২৭টি ওয়ার্ডে ১২০০ লোকবল কাজ করবেন। এ কার্যক্রম তদারকির জন্য নগরীর ২৭টি ওয়ার্ডকে তিনটি অঞ্চলে ভাগ করা হয়েছে। এ তিনটি অঞ্চলে সিসিকের ৯টি পর্যবেক্ষণ টিম কাজ করবেন।

শেয়ার করুন