স্টার্টআপদের কল্যাণে আরও ৪টি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর করল আইডিয়া

সিলেটের সকাল ডেস্ক ।। দেশৗয় স্টার্টআপদের কল্যাণে এবং তাদের দক্ষতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের উদ্ভাবন ও উদ্যোক্তা উন্নয়ন একাডেমি প্রতিষ্ঠাকরণ (আইডিয়া) প্রকল্প আরও ৪টি প্রতিষ্ঠানের সাথে সমঝোতা স্বারক স্বাক্ষর করে। মঙ্গলবার (২ জানুয়ারি) তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের আইডিয়া প্রকল্পের সভাকক্ষে আইসিটি বিভাগের সিনিয়র সচিব এন এম জিয়াউল আলম- এর উপস্থিতিতে আগারগাঁও-এর আইসিটি টাওয়ারে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যবসায় প্রশাসন ইনস্টিটিউট (আইবিএ), তথ্য প্রযুক্তি ইনস্টিটিউট (ইনস্টিটিউট অফ ইনফরমেশন টেকনোলজি-আইআইটি), যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (যবিপ্রবি) কম্পিউটার প্রকৌশল ও প্রযুক্তি (সিএসই) বিভাগ এবং ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের সেন্টার ফর অন্ট্রেপ্রেনারশিপ ডেভেলপমেন্ট (সিইডি) এর সাথে আইডিয়া প্রকল্পের চারটি পৃথক সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়।

সিইডি এর সাথে আইডিয়া প্রকল্পের উপ-প্রকল্প পরিচালক (উপসচিব) কাজী হোসনে আরা এবং বাকি অন্য ৩টি প্রতিষ্ঠানের সাথে আইডিয়া প্রকল্পের পক্ষে পরিচালক ও অতিরিক্ত সচিব সৈয়দ মজিবুল হক উক্ত প্রতিষ্ঠানগুলোর প্রতিনিধিগণের সাথে সমঝোতা স্মারকগুলোতে স্বাক্ষর করেন। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইবিএ এর সহযোগী অধ্যাপক খালেদ মাহমুদ, আইআইটি এর পরিচালক ড. মোহাম্মদ শফিউল আলম খান, যবিপ্রবি সিএসসি বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. সৈয়দ মো: গালিব এবং ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের সিইডি এর সিনিয়র রিসার্স ফেলো ও ব্র্যাক বিজনেস স্কুলের সহকারি অধ্যাপক শামিম এহসানুল হক তাদের নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের পক্ষে উক্ত সমঝোতা স্মারকে স্বাক্ষর করেন। এ সময় বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিল (বিসিসি) এর নির্বাহী পরিচালক পার্থপ্রতিম দেব উপস্থিত ছিলেন।

সমঝোতা স্বারক অনুযায়ী, সমঝোতা স্মারক অনুযায়ী, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইবিএ, আইআইটি এবং যবিপ্রবি – এর সাথে আইডিয়া প্রকল্পের পৃথক সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরের লক্ষ্য হচ্ছে যৌথভাবে বিভিন্ন ট্রেনিং, মেন্টরিং, কাম্পেইন, অ্যাওয়ার্ডস, ফেলোশিপ, সেমিনার ও রিসার্চসহ উদ্যোক্তা সংস্কৃতি বিকাশের উদ্দেশ্যে বিভিন্ন ধরণের উদ্যোগ গ্রহণ করা এবং পাশাপাশি সংশ্লিষ্ট একাডেমিক, গবেষক, শিল্প ও বাণিজ্য ক্ষেত্রের অভিজ্ঞ ব্যক্তিবর্গকে আইডিয়া প্রকল্পের বিভিন্ন কার্যক্রমে রিসোর্স পারসন হিসেবে তাদের সংযুক্ত করা।

আইবিএ ও  আইডিয়া প্রকল্প একে অপরের সাথে এআই, মেশিন লার্নিং, বিগডাটা বিষয়ে অভিজ্ঞতা বিনিময়সহ পার্টনারশিপ ও জয়েন্ট ভেঞ্চারের মাধ্যমে কাজ করবে। এছাড়া, আইডিয়া প্রকল্প ও আইআইটি যৌথভাবে আইসিটি বেইজড প্রতিযোগিতা, প্রোজেক্ট শো কেসিং, হ্যাকাথন, অলিম্পিয়াডস ইত্যাদি প্রোগ্রামের আয়োজন করবে।

অপরদিকে, ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের সেন্টার ফর অন্ট্রেপ্রেনারশিপ ডেভেলপমেন্ট (সিইডি) এর সাথে সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরের ফলে আইডিয়া প্রকল্পের স্টার্টআপসমূহ ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের Business Incubation Centre (BIC) ব্যবহার করার সুযোগ পাওয়ার পাশাপাশি ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের সম্ভাবনাময় প্রকল্পগুলোও আইডিয়া প্রকল্পের প্রকল্পের কো-ওয়ার্কিং স্পেস ও ল্যাব ব্যবহার করার সুযোগ পাবে। এছাড়াও, দুই পক্ষ যৌথভাবে ট্রেনিং, পার্টনারশিপ, জয়েন্ট ভেঞ্চার, ভেনু সাপোর্ট, ইউএসএ ও অস্ট্রেলিয়ার সাথে ফেলোশিপ প্রোগ্রামেও একে অপরকে সহয়তা করবে।

উল্লেখ্য যে, আইডিয়া প্রকল্প থেকে এখন পর্যন্ত ১৭০টি উদ্যোক্তাকে দেওয়া হয়েছে প্রি-সীড গ্র্যান্ট। আর্থিক অনুদানপ্রাপ্ত স্টার্টআপদের মেন্টরিং, ট্রেনিং ও ধারাবাহিক পরামর্শ প্রদানের মাধ্যমে তাদের উদ্ভাবনী ধারনাকে টেকসই বিজনেস মডেলে রূপান্তর করতে সহায়তা প্রদান চলমান রয়েছে। এর ফলে দেশে গঠিত হবে একটি কার্যকরি স্টার্টআপ ইকোসিস্টেম যা ভবিষ্যতে দেশের উন্নত ব্যবসায়িক পরিবেশ তৈরিতে যথেষ্ট ভূমিকা রাখবে বলে মনে করছেন প্রকল্পের পরিচালক ও অতিরিক্ত সচিব সৈয়দ মজিবুল হক।

শেয়ার করুন