চতুল বাজার ব্যবসায়ী সমিতির নির্বাচন সম্পন্ন: সভাপতি ইসমাঈল, সম্পাদক রুবেল

সিলেটের সকাল রিপোর্ট ।। সিলেটের কানাইঘাট উপজেলার ঐতিহ্যবাহী চতুল বাজার ব্যবসায়ী সমিতির কার্যনির্বাহী সমিতির দ্বি-বার্ষিক নির্বাচনের ভোটগ্রহণ শান্তিপূর্ণ ভাবে সম্পন্ন হয়েছে। নির্বাচনে ‘ছাতা’ প্রতিক নিয়ে ৩৩৮ ভোট পেয়ে হাজী ইসমাঈল আলী সভাপতি এবং ‘দোয়াতকলম’ প্রতিক নিয়ে জাহেদুল ইসলাম রুবেল ৪৫৮ ভোট পেয়ে সাধারণ সম্পাদক পদে নির্বাচিত হয়েছেন।

মধ্যবাজারের আল ফারুক মার্কেটে নির্বাচন কমিশন কার্যালয়ে বুধবার সকাল নয়টা থেকে বিকেল চারটা পর্যন্ত বিরতিহীনভাবে ভোট গ্রহণ চলে। এবারের ভোটে ৯টি পদের জন্য ২০ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বীতা করেন। এর মধ্যে সভাপতি পদে তিনজন, সহ-সভাপতি পদে তিনজন, সাধারণ সম্পাদক পদে তিনজন, কোষাধ্যক্ষ পদে দুই জন এবং পাঁচটি সদস্য পদের জন্য নয়জন প্রার্থী নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় ছিলেন।

প্রায় ৫ বছর পর অনুষ্ঠেয় এ নির্বাচনকে ঘিরে পুরো বাজার এলাকায় বিরাজ করে উৎসবের আমেজ। এজন্য ভোটকেন্দ্রের আশে-পাশ ছেয়ে গেছে নির্বাচনী পোস্টারে। নির্বাচনের প্রিজাইডিং অফিসারের দায়িত্ব পালন করেন উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো: তারিকুল ইসলাম। ভোট গণনা শেষে রাত আটটার দিকে আনুষ্ঠানিকভাবে ফলাফল ঘোষণা করেন তিনি।

নির্বাচনে সভাপতি পদে নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি আব্দুর রহমান ‘চেয়ার’ প্রতিক নিয়ে ২৬৫ ভোট পান। সাধারণ সম্পাদক পদে নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি মস্তাক আহমদ ‘হরিণ’ প্রতিক নিয়ে ২৮৬ ভোট পেয়েছেন। এছাড়া সহ-সভাপতি পদে হেলাল উদ্দিন ‘মটর সাইকেল’ প্রতিকে ৩৬৬ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হন।

কোষাধ্যক্ষ পদে জয়নাল আবেদিন ‘ডাব’ প্রতিক নিয়ে ৫২৮ ভোট পেয়ে বিজয়ী হন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি ফাহিম আহমদ ‘বই’ প্রতিক নিয়ে ২৬৩ ভোট পেয়েছেন। তাছাড়া ফয়সল আহমদ, আব্দুস সাত্তার, শেখ হাসান ইয়াকুব, এখলাছ উদ্দিন এবং জুবায়ের আহমদ সদস্য পদে নির্বাচিত হন।

প্রধান নির্বাচন কমিশনার মো. আব্দুস সালাম জানান, ‘ভোটকেন্দ্র সুষ্ঠুভাবে ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে ভোটারগণ  ভোট দিয়েছেন। এছাড়া ভোটকেন্দ্রের সার্বিক শান্তিশৃঙ্খলা ও নিরাপত্তা ব্যবস্থার জন্য উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসনের সার্বক্ষণিক নজরদারীও ছিল। সবমিলিয়ে শান্তিপূর্ণভাবেই উৎসবমুখর পরিবেশে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে।’

আরও পড়ুন-রাত পোহালেই চতুল বাজার ব্যবসায়ী সমিতির ভোট

শেয়ার করুন