ঢাকা বিআরবি হাসপাতালে জকিগঞ্জের আ.লীগ নেতা ফারুককে স্থানান্তর : অবস্থা উন্নতির দিকে

জকিগঞ্জ প্রতিনিধি : ঢাকায় বিআরবি হাসপাতালের আইসিইউতে চিকিৎসাধীন জকিগঞ্জের আওয়ামী লীগ নেতা ও আসন্ন পৌরসভা নির্বাচনে আ.লীগের দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশী মেয়র প্রার্থী ফারুক আহমদের শারীরিক অবস্থা কিছুটা উন্নতি হয়েছে। বুধবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে সিলেট ইবনে সিনা হাসপাতাল থেকে আইসিইউ এম্বুলেন্সযোগে ঢাকা বিআরবি হাসপাতালে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে নেয়া হয়। ইবনে সিনায় দলের বিপুল সংখ্যাক নেতাকর্মী, সমর্থক, স্বজন ও শুভানুধ্যায়ীরা উপস্থিত ছিলেন। ওই হাসপাতালে তিনি বর্তমানে আইসিইউতে রয়েছেন। তবে পরিস্থিতি কিছুটা উন্নতির দিকে। বৃহস্পতিবার দুপুরের দিকে বিআরবির হাসপাতালে প্রফেসর মোহাম্মাদ আলীর সহকর্মী প্রফেসরগণ ফারুক আহমদকে দেখেছেন। ইতিমধ্যে করোনা পরীক্ষার জন্য তাঁর নমুনাও নেয়া হয়েছে।
আওয়ামীলীগ নেতা ফারুক আহমদের সাথে থাকা পৌরসভার প্যানেল মেয়র ও উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক কামরুজ্জামান কমরু জানান, ফারুক আহমদের চিকিৎসাসেবা নিশ্চিত করতে সিলেট-৫ আসনের সংসদ সদস্য ড. হাফিজ আহমদ মজুমদার, জকিগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি লোকমান উদ্দিন চৌধুরীসহ দলীয় শীর্ষ নেতৃবৃন্দ সার্বক্ষণিক খোঁজখবর নিচ্ছেন। পরিবারের পক্ষ থেকে ফারুক আহমদের সুষ্ঠু চিকিৎসায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দৃষ্টি আকর্ষণ ও দ্রæত আরোগ্য কামনায় সকলের দোয়া চাওয়া হয়েছে।
ফারুক আহমদের অসুস্থতার খবর পেয়ে বুধবার সিলেট ইবনে সিনা হাসপাতালে দেখতে যান জকিগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি লোকমান উদ্দিন চৌধুরী, জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান ও জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক শামিম আহমদসহ জেলা ও উপজেলার নেতাকর্মীরা।
প্রসঙ্গত, গত রবিবার রাতে ফারুক হঠাৎ বুকে ব্যথা ও বমি করে জ্ঞান হারান এ আওয়ামী লীগ নেতা। পরে শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে সোমবার তাঁকে গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় সিলেট নগরীর ইবনে সিনা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। চিকিৎসকরা জানিয়েছিলেন, তাঁর পিত্তথলিতে পাথর হয়েছে। দ্রæত অস্ত্রোপচার করা লাগবে। এরপর মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৮টায় অস্ত্রোপচার করা হয়। কিন্তু এই অস্ত্রোপচার নিয়ে নানা বির্তক দেখা দিয়েছে। অস্ত্রোপচারের পর অতিরিক্ত রক্তক্ষরণের কারণে ফারুক আহমদের শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে তাঁকে আইসিউতে রাখা হয়। গুরুতর অসুস্থ হয়ে সংকটাপন্ন অবস্থায় জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে তাঁকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা বিআরবি হাসপাতালে পাঠানো হয়।
এদিকে ফারুক আহমদের দ্রæত আরোগ্য কামনায় জকিগঞ্জের মসজিদে মসজিদে দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হচ্ছে। বৃহস্পতিবার ফজরের নামাজের পর কেছরী পশ্চিম মসজিদে ও জোহরের নামাজের পর আনন্দপুর জামে মসজিদে দোয়া ও শিরনী বিতরণ করা হয়েছে। শুক্রবার জুম্মার নামাজের পর উপজেলার সকল মসজিদেই দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হবে।

শেয়ার করুন