জকিগঞ্জে ২০ দোকান আগুনে ভস্মীভূত, আড়াই কোটি টাকার ক্ষতি

জকিগঞ্জ প্রতিনিধি :: সিলেটের জকিগঞ্জ পৌর শহরে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে ২০টি দোকান ভস্মীভূত হয়েছে। এতে প্রায় আড়াই কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে জানিয়েছেন ক্ষতিগ্রস্থরা। বৈদ্যুতিক গোলযোগ থেকে আগুনের সূত্রপাত হয় বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

শুক্রবার বেলা ১ টার দিকে জুমার নামাজ চলাকালে কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের পাশের একটি লেপ-তোষকের দোকান থেকে আগুনের সুত্রপাত হয়। পরে মুহুর্তেই আগুন ছড়িয়ে পড়ে। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের কর্মীরা স্থানীয়দের সহায়তায় প্রায় ঘন্টাখানেক চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনেন।

স্থানীয়রা জানান, ভয়াবহ এ অগ্নিকাণ্ডে আনন্দপুরের ফারুক আহমদের চাউলের আড়ৎ, মানিকপুরের এনু মিয়ার মশলার দোকান, পঙ্গবটের আতাই মিয়া, গন্ধদত্ত গ্রামের আলী হোসেন, আনন্দপুরের আলী আহমদ, লামারগ্রামের নেজাম উদ্দিন, ছবড়িয়ার আব্দুল হক, আলমনগরের শফিক আহমদ, কেছরীর জাহেদ আহমদ, পীরের চকের হোসেন আহমদ, হাইদ্রাবন্দের ছালিক আহমদ মাছাইর চকের আব্দুল হক, বিলেরবন্দের কামরুল ইসলাম কামরুর, কেছরীর আব্দুন নুরের ভুষিমালের দোকান, মোহাম্মদ আলীর লেপের দোকান ও জকিগঞ্জ কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের অযুখানাসহ অন্তত ২০টি দোকান পুড়ে ছাই হয়ে যায়।

এছাড়াও ক্ষতিগ্রস্থ হয় আরোও বেশ কয়েকটি দোকান। আগুন নিভাতে তাড়াহুড়ো করতে গিয়ে আহত হয়েছেন বেশ কয়েকজন। এক ঘন্টার আগুনে নিঃস্ব হয়ে অনেক ব্যবসায়ী বারবার কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন।

জকিগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের ষ্টেশন অফিসার মনোতোষ মল্লিক জানান, ‘আগুন লাগার সাথে সাথেই ফায়ার সার্ভিসের লোকজন চলে আসায় ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি থেকে রক্ষা পেয়েছে জকিগঞ্জ বাজার। স্থানীয় লোকজনের সহযোগিতায় ফায়ার সার্ভিসের লোকজন প্রায় ঘন্টাখানেক সময় চেষ্ঠা চালিয়ে আগুন নিভাতে সক্ষম হয়।’

শেয়ার করুন