যুবদলের কমিটিতে অভিনন্দন সিলেট বিএনপির!

সিলেটের সকাল রিপোর্ট :: দীর্ঘ দেড় যুগ পর সিলেট জেলা ও মহানগর যুবদলের কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে। তবে কমিটি ঘোষণার পরপরই তা নিয়ে সৃষ্টি হয়েছে তুমুল ‘বিতর্ক’। পক্ষে-বিপক্ষে চলছে নানা তৎপরতাও। পদবঞ্চিতদের পাশাপাশি বিএনপির নেতারাও বিক্ষুদ্ধ হয়ে উঠেছেন।

কমিটি গঠনের প্রতিক্রিয়ায় বিএনপির কেন্দ্রীয় পদ ছাড়ারও সিদ্ধান্ত নিয়েছেন কয়েক নেতা। এদের মধ্যে সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরীও রয়েছে।

তিনি ছাড়াও অন্য তিনজন হলেন- দলের কেন্দ্রীয় সহ-ক্ষুদ্র ঋণ বিষয়ক সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা আব্দুর রাজ্জাক, কেন্দ্রীয় সদস্য ডা. শাহরিয়ার হোসেন চৌধুরী এবং কেন্দ্রীয় সহ-স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক এডভোকেট শামসুজ্জামান জামান।

শুক্রবার গঠিত সিলেট জেলা ও মহানগর যুবদলের কমিটিতে ‘নির্যাতিত এবং ত্যাগীদের মূল্যায়ন করা হয়নি’- এ কারণে তারা পদত্যাগ করছেন বলেও জানান।

এ কমিটি দুটি নিয়ে বেশিরভাগ নেতাকর্মীদের মাঝে অসন্তোষ থাকলেও কমিটির নেতৃবৃন্দকে অভিনন্দন জানিয়েছে সিলেট জেলা ও মহানগর বিএনপি। একই সাথে দীর্ঘদিন পর সিলেট যুবদলের নতুন কমিটি করায় বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান, মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ও যুবদলের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানানো হয়েছে।

শনিবার মহানগর বিএনপির দপ্তর সম্পাদক সৈয়দ রেজাউল করিম আলো’র পাঠানো এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়। এতে বলা হয়, ‘প্রায় দ্ইু দশক পর জেলা ও মহানগর যুবদলের নতুন কমিটি ঘোষনা করায় সিলেটের যুবদলে নতুন মাত্রা যোগ হয়েছে বলে মনে করেন সিলেট মহানগর বিএনপির সভাপতি নাসিম হোসাইন ও ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট শামীম সিদ্দিকী । এর মাধ্যমে নতুন নেতৃত্ব সৃষ্টির পাশাপাশি খালেদা জিয়ার মুক্তি ও গণতন্ত্র পুনরূদ্ধার আন্দোলনে জোরদার করতে যুবদল অগ্রণী ভুমিকা পালন করবে বলে তাদের বিশ্বাস।’

একই ভাবে জেলা বিএনপির আহ্বায়ক কামরুল হুদা জায়গীরদার এক বিবৃতিতেও  জেলা ও মহানগর যুবদল কমিটিকে অভিনন্দন জানিয়েছেন। তিনি বলেছেন, ‘দীর্ঘ ১৯ বছর পর সিলেট জেলা ও মহানগর যুবদলের আহ্বায়ক কমিটি গঠন করায় সিলেটে যুবদলের কার্যক্রম গতিশীল হবে। নতুন কমিটির নেতৃত্বে একটি সফল কাউন্সিলের মাধ্যমে পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠিত হবে বলে আমার বিশ্বাস।’

‘দীর্ঘদিন পর সিলেট যুবদলের কমিটি ঘোষনা করায় বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান দেশনায়ক তারেক রহমান, মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ও যুবদলের কেন্দ্রীয় সভাপতি-সাধারণ সম্পাদকের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান তিনি। খালেদা জিয়ার মুক্তি আন্দোলনে সক্রিয় ভূমিকা রাখার জন্য সিলেট যুবদলের নেতৃবৃন্দের প্রতি আহ্বান জানান তিনি।’

উল্লেখ্য, শুক্রবার বিকেলে কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের সাবেক সহ-সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান পাপলুকে আহ্বায়ক করে ২৯ সদস্যের জেলা কমিটি ও সাবেক ছাত্রনেতা নজিবুর রহমান নজিবকে আহ্বায়ক করে ২৭ সদস্যের মহানগর কমিটির অনুমোদন দেন যুবদলের কেন্দ্রীয় সভাপতি সাইফুল আলম নীরব ও সাধারণ সম্পাদক সুলতান সালাউদ্দিন টুকু।

শেয়ার করুন