সকাল ৮টা থেকে রাত ৯ পর্যন্ত কাঁচামালের বড় ট্রাক শহরে প্রবেশ বন্ধের দাবি

সিলেটের সকাল ডেস্ক :: যানজট নিরসনে ও জনস্বার্থে সকাল ৮টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত বিভিন্ন জেলা থেকে আগত আলুসহ কাঁচামালের বড় বড় ট্রাক শহরে প্রবেশ বন্ধ রাখা এবং সিলেট ট্রেড সেন্টার ভেজিটেবিল মার্কেট ও হাজী নওয়াব আলী মার্কেটের সামনে যাতে ভাসমান হকার বসতে না পারে এই দুই দাবিতে প্রশাসনের বিভিন্ন দপ্তরে পৃথক পৃথক স্মারকলিপি প্রদান করেছেন সিলেট ট্রেড সেন্টার ভেজিটেবল মার্কেট ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দ।

বুধবার সকাল ১১টায় সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের উপপুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) ফয়ছল মাহমুদ ও দুপুর ১২টায় সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার পরিতোষ ঘোষ এবং মেট্রোপলিটন চেম্বারের সাবেক সহসভাপতি হোরায়রা ইফতার হোসেনের নিকট পৃথক পৃথক স্মারকলিপি প্রদান করেন।

স্মারকলিপিতে সবজি মার্কেটের ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দ বলেন, ২১ এপ্রিল সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী ভেজিটেবল মার্কেট সিলেট ট্রেড সেন্টার ও হাজী নওয়াব আলী সবজি মার্কেটের উপর নোটিশ প্রদান করেন যে উভয় মার্কেটের সামনে যানজটের কারণে স্কুল কলেজের ছাত্রছাত্রী ও জনসাধারণরে চলাচলে বিঘœ সৃষ্টি হয়। এসময় মেয়র উভয় মার্কেটের ব্যবসায়ীদের দ্রুত যানজট নিরসনের নির্দেশ দেন। তাই উভয় মার্কেটের যানজট স্থায়ীভাবে নিরসের লক্ষ্যে স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থী ও জনসাধারণ নির্বিঘেœ চলাচলের জন্য মার্কেটের ব্যবসায়ীরা বিভিন্ন জেলা থেকে আমদানীকৃত বড় বড় ট্রাক দ্বারা যে মালামাল আসবে উক্ত মালামাল রাত ৯টার পর থেকে সকাল ৮টার পর্যন্ত মার্কেটের ভেতরে নিজস্ব জায়গায় ট্রাকগুলো পার্কিং করে নিজ দায়িত্বে মালামাল আনলোড করার কথা স্মারকলিপিতে জানানো হয়।

পাশাপাশি তারা স্মারকলিপিতে আরো বলেন, সকাল ৮টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত মালবাহী কাঁচামালের কোনো ট্রাক শহরের ভেতর প্রবেশ বন্ধের দাবি জানান। তাঁরা আরো বলেন, যদি সকাল ৮ট পর কোন বড় ট্রাক মালামাল নিয়ে আসে তাহলে উক্ত বড় ট্রাক শহরের বাহিরের নির্দিষ্ট স্থানে থাকবে এবং রাত ৯টার পর এসে উক্ত মালামাল আনলোড করা করবেন ব্যবসায়ীরা।

স্মারকলিপি প্রদানকালে উপস্থিত ছিলেন, সিলেট ট্রেড সেন্টার ভেজিটেবিল মার্কেট ব্যবসায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক মো. ছাদ মিয়া, সহসভাপতি মো. কওছর আলী, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. আলেক মিয়া।

শেয়ার করুন