হাঙ্গেরিতে নৌকাডুবি: ৭ পর্যটক নিহত, নিখোঁজ ১৯

সিলেটের সকাল ডেস্ক :: মধ্য ইউরোপের দেশ হাঙ্গেরির রাজধানী বুদাপেস্টের কাছের এক নদীতে নৌকাডুবির ঘটনায় দক্ষিণ কোরিয়ার অন্তত সাতজন পর্যটক নিহত হয়েছেন। এ দুর্ঘটনায় নিখোঁজ রয়েছেন আরও ১৯ জন। তাদের জীবিত উদ্ধারের সম্ভাবনা ক্ষীণ। বুধবার স্থানীয় সময় রাত দশটার দিকে এ দুর্ঘটনা হয়।

হাঙ্গেরি দিয়ে প্রবাহিত ইউরোপের সবচেয়ে দীর্ঘ নদী দানিয়ুব পর্যটকদের জন্য অন্যতম আকর্ষণীয় একটি স্থান। প্রতি বছর অসংখ্য মানুষ সেখানে ঘুরতে যান। বুধবার ডুবে যাওয়া নৌকাটির নাম মারমেইড (মৎসকন্যা) বলে চিহ্নিত করা গেছে। দুটি ডেক সম্বলিত ওই নৌকা ৪৫ জন মানুষ বহন করতে সক্ষম।

রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যমকে উদ্ধৃত করে বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, নৌকাটিতে মোট ৩৩ জন যাত্রী ছিলেন। এদের বেশিরভাগই দক্ষিণ কোরীয় পর্যটক। নৌকাটি তার গন্তব্যে যাওয়ার পথে ঘাঁটে ভিড়তে যাওয়া অন্য একটি নৌকার সঙ্গে ধাক্কা লেগে ডুবে যায়।

দক্ষিণ কোরিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, নৌকাডুবির ঘটনায় এখনো ১৯ জন কোরিয়ান নাগরিক নিখোঁজ রয়েছেন। দেশটির সরকার কর্মকর্তাদের নিয়ে গঠিত একটি দল হাঙ্গেরিতে পাঠানোর পরিকল্পনা করছে বলেও জানিয়েছে তারা।

বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই নৌকা, ডুবুরি, স্পটলাইট এবং রাডার স্ক্যানিং যন্ত্র দিয়ে নিখোঁজ যাত্রীদের উদ্ধার অভিযান শরু হয়। উদ্ধারকারী দল বলছে, শক্তিশালী স্রোতের কারণে উদ্ধার অভিযানে বিঘ্ন ঘটছে। নিখোঁজদের জীবিত উদ্ধারের ব্যাপারে কোনও আশার কথা বলতে পারেনি তারা।

শেয়ার করুন