ভূমধ্যসাগরে নিখোঁজ সাব্বিরের সন্ধানে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা

সিলেটের সকাল ডেস্ক :: অবৈধভাবে লিবিয়া থেকে ইতালি পাড়ি জমানোর সময় ভূমধ্যসাগরে নৌকাডুবিতে নিখোঁজদের মধ্যে রয়েছেন সিলেট সদরের সাব্বির খালিক (২৪)। তিনি সদরের কান্দিগাঁওয়ের বসন্তরাগাঁওয়ের মৃত আব্দুল খালিকের ছেলে।

দালালের প্রলোভনে উন্নত জীবনের আশায় গত ৫ জানুয়ারি বাংলাদেশ থেকে লিবিয়া যান তিনি। এরপর গত ১১ মে নৌকাযুগে ইতালির উদ্দেশ্যে রওয়ানা হন। তবে ওই নৌকা তিউনিশিয়া উপকূলে ডুবে গেলে তিনিও নিখোঁজ হন বলে ধারণা করছে তার স্বজনরা। এজন্য তারা তার সন্ধান চেয়ে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেনের হস্তক্ষেপ চেয়েছেন তার পরিবারের সদস্যরা।

শনিবার রাতে নগরীর হাফিজ কমপ্লেক্সের বাসায় মন্ত্রীর সাথে দেখা করে প্রয়োজনীয় কাগজ পত্রও তাঁর কাছে প্রদান করেন তারা। সাব্বির খালিকের বড় ভাই শাহ আলম জানান, ‘সাব্বির সিলেটের বিশ্বনাথের দক্ষিণ গ্রামের চমক আলীর ছেলে রফিক মিয়ার মাধ্যমে নগদ ১২ লক্ষ্য টাকায় চুক্তিতে পাঁচ মাস আগে লিবিয়া গিয়েছিল।’

সর্বশেষ গত ৮ মে মোবাইল ফোনে সাব্বির তাদের সাথে কথা বলে। এসময় সে জানায় দালালারা ‘গেম’ এর জন্য প্রস্তুতি নিতে বলেছে। এরপর থেকে তার সাথে কোন যোগাযোগ করতে পারেননি তারা। ফলে তার পরিবারের ধারনা, নৌকাডুবিতে সাব্বির খালিক নিখোঁজ রয়েছেন।

সাব্বির খালিক দক্ষিণ সুরমা কলেজে বিএ (সেকেন্ড ইয়ারে) পড়া লেখা বাদ দিয়ে ইতালির উদ্যেশ্যে দেশ ত্যাগ করে ছিল। এ ব্যাপারে বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সিলেট অফিসকে অবহিত করা হয়েছে এবং জালালাবাদ থানায় শাহ আলম বাদী হয়ে একটি লিখিত অভিযোগ দাখিল করেছেন বলেও জানান তিনি।

শেয়ার করুন