শিক্ষার্থীদের আন্দোলন ২৮ মার্চ পর্যন্ত স্থগিত

সিলেটের সকাল ডেস্ক :: রাজধানীর নর্দ্দায় প্রগতি সরণিতে বাসচাপায় শিক্ষার্থী নিহতের ঘটনায় নিরাপদ সড়কের দাবিতে চলা শিক্ষার্থীদের আন্দোলন আগামী ২৮ মার্চ পর্যন্ত স্থগিত করা হয়েছে।

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র আতিকুল ইসলাম শিক্ষার্থীদের দেওয়া দাবি বিবেচনার আশ্বাস দিলে আন্দোলন স্থগিত করার ঘোষণা দেন বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রফেশনালসের (বিইউপি) শিক্ষার্থীরা।

তাদের দাবিতে রয়েছে- সর্বোচ্চ ৩০ দিনের মধ্যে আবরার আহমেদ চৌধুরীর নিহতের বিষয়ে অভিযোগপত্র দাখিল, ফিটনেসবিহীন গাড়ি ও লাইসেন্সবিহীন চালক যেন সড়কে না আসে প্রভৃতি।

বুধবার (২০ মার্চ) বিকেলে আন্দোলনরত বিইউপি শিক্ষার্থীদের একটি প্রতিনিধি দলের সঙ্গে জরুরি বৈঠকে বসেন ডিএনসিসি মেয়র আতিকুল ইসলাম। বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন ডিএমপি কমিশনার আসাদুজ্জামান মিয়া, বিইউপির উপাচার্য মেজর জেনারেল মোহাম্মদ এমদাদ উল বারী। অন্যদিকে বিইউপির আইন বিভাগের শিক্ষার্থী তাওহিদ উজ্জামানের নেতৃত্বে ১০ শিক্ষার্থী বৈঠকে অংশ নেন।

বৈঠকে শিক্ষার্থীদের পক্ষ থেকে বেশ দাবি উত্থাপন করা হয়। ছাত্রদের দাবিগুলো মেয়রের বিবেচনার আশ্বাসে আগামী ২৮ মার্চ পর্যন্ত আন্দোলন স্থগিত করেন শিক্ষার্থীরা। বিউপির শিক্ষার্থী তাওহিদ উজ্জামান বৈঠক শেষে এক মিডিয়া ব্রিফিংয়ে এ ঘোষণা দেন।

তবে ২৮ তারিখের মধ্যে দাবিগুলো মেনে নেওয়ার পক্ষে কার্যত কোনো পদক্ষেপ দেখা না গেলে আবারো আন্দোলনের ডাক দেওয়া হবে বলেও জানান তিনি।

এদিকে বৈঠক শেষে মেয়র আতিকুল ইসলাম বলেন, সুপ্রভাতসহ জাবালে নূর বাসের রুট পারমিট বাতিল করা হবে এবং বাসগুলো আর সড়কে চলাচল করবে না। বিভিন্ন স্থানে সম্ভাব্যতা যাচাই করে আগামী ৭ দিনের মধ্যে সড়কে জেব্রা ক্রসিং, রোড সাইন এবং যাত্রী ছাউনি নির্মাণ করা হবে।

এছাড়াও ঢেলে সাজানো হবে বিআরটিএ। আর সড়কে ফিটনেসবিহীন গাড়ি এবং লাইসেন্সবিহীন চালকদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দিয়েছেন ডিএমপি কমিশনার।

-তথ্যসূত্র: বাংলানিউজ

শেয়ার করুন