১৬ নভেম্বর তরুণদের মুখোমুখি হচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী

সিলেটের সকাল ডেস্ক :: নতুন প্রজন্ম ও বাংলাদেশ নিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার ভবিষ্যৎ ভাবনার কথা ভাগাভাগি করবেন তরুণদের সঙ্গে। এ জন্য আগামি ১৬ নভেম্বর প্রধানমন্ত্রী তার সরকারি বাসভবন গণভবনে ‘লেটস টক’ নামের একটি অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন। শুনবেন তরুণদের স্বপ্ন, স্বপ্ন পূরণ এবং স্বপ্নের বাংলাদেশ গড়ার কথা।

বাংলাদেশের ইতিহাসে প্রথমবারের মতো একজন প্রধানমন্ত্রী তরুণদের সাথে এ ধরনের আয়োজনে যোগদান করবেন। উদ্যোক্তা, পেশাজীবী, চাকুরিজীবী, ছাত্র-ছাত্রী, ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক কর্মীসহ সারাদেশ থেকে মনোনীত হয়ে আসা ১৫০ তরুণ-তরুণী এদিন বিকেল ৩টা থেকে ৫টা পর্যন্ত ‘লেটস টক উইথ শেখ হাসিনা’ শীর্ষক অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করবে।

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের গবেষণা শাখা ‘সেন্টার ফর রিসার্চ এ্যান্ড ইনফরমেশন’ (সিআরআই) এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্নের ‘সোনার বাংলা’ হিসাবে দেশকে গড়ে তুলতে তার সরকারের গৃহিত বিভিন্ন উদ্যোগ ও পরিকল্পনার বিষয় নিয়ে তরুণদের সঙ্গে আলোচনা করবেন। কয়েকটি টেলিভিশন চ্যানেল এই অনুষ্ঠান সরাসরি সম্প্রচার করবে।

সিআরআই-এর জ্যেষ্ঠ বিশ্লেষক এবং সমন্বয়কারী ব্যারিস্টার শাহ আলী ফরহাদ বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এই উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়েছেন এবং তিনি সব সময় তরুণদের কথা শুনতে চেষ্টা করেন ও তাদের মতামতকে গুরুত্ব দেন।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণকারীদের কাছ থেকে প্রশ্ন নেবেন এবং তাদের জিজ্ঞাসার জবাব দেবেন।

নীতি-নির্ধারকদের সাথে মতবিনিময়ের সুযোগ সৃষ্টির লক্ষ্যে ‘সিআরআই’ নিয়মিতভাবে তরুণদের জন্য ‘লেটস টক’ অনুষ্ঠান আয়োজন করে থাকে।

ব্যারিস্টার শাহ আলী ফরহাদ বলেন, এই অনুষ্ঠানটি নতুন প্রজন্মের চিন্তা-ভাবনা ও সমস্যার কথা নীতি নির্ধারকদের কাছে তুলে ধরার জন্য একটি ‘প্লাটফরম’ হিসেবে কাজ করছে।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয় সিআরআই আয়োজিত ‘লেটস টক’ অনুষ্ঠানের কয়েকটি পর্বে অংশগ্রহণ করেছেন।

তথ্যসূত্র : বাসস

শেয়ার করুন