ক্রোয়েটদের হারিয়ে প্রতিশোধ নিল ইংলিশরা

স্পোর্টস ডেস্ক:: রাশিয়া বিশ্বকাপে কত স্বপ্ন নিয়েই না গিয়েছিল ইংলিশরা। হ্যারি কেইন-ডেলে আলিদের হাত ধরে ৫২ বছর আগের স্মৃতি ফিরিয়ে আনার সেই স্বপ্ন ধুলিস্যাৎ করে দিয়েছিল ক্রোয়েটরা। ২-১ গোলে হেরে বিদায় নিতে হয়েছিল সেমিফাইনাল থেকেই। এবার সেই হারের মধুর প্রতিশোধ নিলো সাউথগেটের শিষ্যরা। উয়েফা ন্যাশনস লিগে ঠিক একই ব্যবধানে ক্রোয়েটদের হারিয়েছে ইংলিশরা।

রোববার (১৮ নভেম্বর) রাতের ম্যাচটার দিকে তাকিয়ে ছিল স্পেনও। লিগ ‘এ’র গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচে ইংল্যান্ড আর ক্রোয়েশিয়া ম্যাচ ড্র হলেই শেষ চারে জায়গা করে নিতো স্পেন। কিন্তু ম্যাচের ৮৫ মিনিটে স্প্যানিশদের হৃদয় ভেঙে দেন টটেনহাম তারকা হ্যারি কেইন।

ম্যাচের ৫৭ মিনিটে গোল করে ক্রোয়েশিয়াকে এগিয়ে দিয়েছিলেন আন্দ্রেস ক্রামারিচ। ৭৮ মিনিটেই ক্রোয়েটদের স্বস্তি কেড়ে নেন জেসি লিনগার্ড। আর শেষ বাঁশি বাজার পাঁচ মিনিট আগে ক্রোয়েশিয়ার কফিনে শেষ পেরেক ঠুকে দেন কেইন।

ম্যাচের শুরুতে এগিয়ে যাওয়ার সুযোগ পেয়ে গিয়েছিল ক্রোয়েশিয়া। কিন্তু ম্যাচ শুরুর মাত্র দুই মিনিটের মাথায় পেয়ে যাওয়া সুযোগ কাজে লাগাতে ব্যর্থ হন আন্তে রেবিচ। তবে এরপরই পাল্টা আক্রমণে উঠে আসে ইংল্যান্ড। রহিম স্টার্লিং একটা সহজ সুযোগ নষ্ট না করলে তখনই এগিয়ে যেতো স্বাগতিকরা।

তবে দুই দলের বহু প্রচেষ্টা সত্ত্বেও প্রথমার্ধ কাটে গোলশূন্য। ম্যাচে গোল বন্ধাত্ব কাটান ক্রামারিচ। ইংলিশদের পেনাল্টি বক্সে দুর্দান্ত ভেলকি দেখিয়ে জর্ডান পিকফোর্ডকে পাশ কাটিয়ে গোল করেন তিনি।

ক্রামারিচের ওই গোলের পর গ্রুপের সবশেষ স্থানটি প্রায় নিশ্চিত হয়ে গিয়েছিল ইংলিশদের জন্য। কিন্তু ম্যাচে ফিরতে মরিয়া ইংলিশ কোচ গ্যারেথ সাউথগেট বদলি খেলোয়াড় হিসেবে ডেলে আলি, জাডোন সানচো এবং লিনগার্ডকে নামিয়েই বাজিমাত করেন।

এক গোল করেই কিছুটা এলোমেলো খেলতে থাকে ক্রোয়েটরা। আর এই সুযোগেই লম্বা এক থ্রো থেকে বল পেয়ে সোজা ক্রোয়েশিয়ার গোলবারের কাছে পৌঁছে গোল আদায় করে নেন লিনগার্ড।

ইংলিশদের জয়সূচক গোলটি আসে কেনের পা থেকে। বেন চিলওয়েলের ফ্রি-কিককে গোল পরিণত করে পুরো ওয়েম্বলি স্টেডিয়ামকে মাতিয়ে তুলেন এই তারকা ফুটবলার। আর ইংলিশদের এই আনন্দ স্বপ্নভঙ্গের বেদনা বয়ে আনলো স্প্যানিশদের জন্য। তবে তাদের জন্য সান্ত্বনা এই যে একই রাতে তারা বসনিয়া-হার্জেগোভিনাকে ১-০ গোলে হারিয়েছে, যদিও তা প্রীতি ম্যাচে। তবু জয় তো।

শেয়ার করুন