সিলেটে ভারতের বৃত্তির চেক পেলেন ২১৬ মুক্তিযোদ্ধার সন্তান

শাবি প্রতিনিধি :: সিলেট বিভাগের বিভিন্ন জেলা এবং কিশোরগঞ্জ অঞ্চলের ২১৬ মুক্তিযোদ্ধার সন্তানকে শিক্ষাবৃত্তি দিয়েছে ভারতীয় হাই-কমিশন।

বৃহস্পতিবার বিকেল ৪টায় সিলেটের শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়(শাবিপ্রবি) এর কেন্দ্রীয় মিলনায়তনে ভারতীয় হাই-কমিশন আয়োজিত অনুষ্ঠানে শিক্ষাবৃত্তির হস্তান্তর করা হয়।

বাংলাদেশে নিযুক্ত ভারতীয় হাইকমিশনার হর্ষবর্ধন শ্রিংলা প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে ২১৬ মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের শিক্ষার্থীদের হাতে স্নাতক পর্যায়ে ৫০ হাজার এবং স্কুল পর্যায়ে ২০ হাজার টাকা করে মোট ৭৭ লক্ষ টাকার বৃত্তির চেক তুলে দেন।

এসময় অনুষ্ঠান মঞ্চে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ এর সাংগঠনিক সম্পাদক মিসবাহ উদ্দীন সিরাজ, শাবি উপাচার্য ফরিদ উদ্দীন আহমেদ, মুক্তিযোদ্ধা ট্রাস্টের চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদ, বীর মুক্তিযোদ্ধা বজলুর মজিদ খসরু, সিলেট মেট্রোপলিট্রন এর অতিরিক্ত কমিশনার পরিতোষ ঘোষ উপস্থিত ছিলেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে ভারতীয় হাই-কমিশনার বলেন, “মুক্তিযোদ্ধারা আমাদের দুই দেশের এক পবিত্র বন্ধন। এই মহান জাতির পরবর্তী প্রজন্মের জন্য একটি সুন্দর ভবিষ্যৎ নিশ্চিত করার জন্য তারা মুক্তিযুদ্ধের সময় কষ্ট সহ্য করেছেন। বর্তমান ও পরবর্তী প্রজন্ম তাঁদের অবদানের প্রতি চিরঋণী। শিক্ষার্থীরাই দেশের ভবিষ্যৎ, আর তাদের এই মেধা ও শ্রম দিয়ে সোনার বাংলা বিনির্মাণে এগিয়ে যাওয়ার আহবান জানান তিনি।

তিনি বলেন,মুক্তিযোদ্ধা সন্তানদের বৃত্তি ও চেক প্রদানের যে প্রকল্প সেটা প্রথম ২০০৬ সালে চালু হয়েছিল। এই প্রকল্পের আওতায় এ পর্যন্ত ১২ হাজার ৬২১ জন শিক্ষার্থীকে ২১ কোটি টাকার বৃত্তি প্রদান করা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন” সিলেটে ভারতের নতুন সহকারী কমিশন অফিস চালু করা হয়েছে। আগামী ৩ থেকে ৪ দিনের মধ্যে নতুন সহকারী হাই কমিশনার অফিসে যোগদান করবেন। আর এই নতুন অফিস ভারতের উত্তর-পূর্ব ও সিলেটের মধ্যে পর্যটন ও ব্যবসা-বাণিজ্যের নতুন দ্বার উন্মুক্ত করবে।

শেয়ার করুন