সিলেটে বৃষ্টি উপক্ষো করে ভোটাররা আসছেন কেন্দ্রে কেন্দ্রে

সিলেটের সকাল রিপোর্ট: বৃষ্টির মধ্যেও সিলেট সিটি কর্পোরেশনের স্থগিত দুটি কেন্দ্রসহ ১৬টি কেন্দ্রে পুনরায় ভোট গ্রহণ শুরু হয়েছে। শনিবার (১১ সেপ্টেম্বর) সকাল আটটা থেকে এসব কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ শুরু হয়। ভোটগ্রহণ একটাটা চলবে বিকাল ৪টা পর্যন্ত।

সকাল থেকে প্রচন্ড বৃষ্টি উপেক্ষা করে ভোটাররা ভোটকেন্দ্রে আসতে শুরু করেছেন। সকাল সাড়ে ১০টায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত কোথাও কোন অপ্রীতিকর ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি।

সকাল ৯টায় হবিনন্দি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে গিয়ে দেখা যায়, বেশ কিছু ভোটার লাইনে দাঁড়ানো। তবে বৃষ্টির জন্য অনেক ভোটার এখনও কেন্দ্রে আসেননি।

কাউন্সিলর প্রার্থী আজম খান বলেন, আশা করছি বৃষ্টি কমলে সাধারণ ভোটাররা ভোটকেন্দ্রে আসবেন। শান্তিপূর্ণভাবে ভোট গ্রহণ হচ্ছে বলে তিনি জানান।

হযরত গাজী বুরহান উদ্দিন গরম দেওয়ান সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রেও শনিবার ভোট গ্রহণ শুরু হয়। এ ওয়ার্ডের কাউন্সিলর প্রার্থী সোহেল আহমদ রিপন জানান, সকাল ১০টা পর্যন্ত ওই কেন্দ্রে প্রায় ৩শ’ ভোট কাস্ট হয়েছে।
সিসিকের ২৪ ও ২৭ নম্বর ওয়ার্ডের দু’টি কেন্দ্র ও সংরক্ষিত ওয়ার্ড-৭ এর ১৪টি কেন্দ্রে মোট ৩৮ হাজার ৯১০জন ভোটার আজ তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন।

প্রতিদ্বন্দ্বিতায় থাকা দুই মেয়র প্রার্থীর মধ্যে বিএনপির প্রার্থী আরিফুল হক চৌধুরী ১৩৪টি কেন্দ্রের মধ্যে ১৩২ কেন্দ্রের ফলাফলে আওয়ামী লীগের প্রার্থী বদর উদ্দিন আহমদ কামরান থেকে ৪৬২৬ ভোটে এগিয়ে রয়েছেন। ১৬১ ভোট পেলেই আরিফ পরবেন জয়ের মালা।

এছাড়া নির্বাচনে দুই সাধারণ ওয়ার্ডের কাউন্সিলরের মধ্যে একজন করে এবং তিনজন সংরক্ষিত ওয়ার্ডের নারী কাউন্সিলর আজ নির্বাচিত হবেন।

সিসিক নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. আলীমুজ্জামান বলেন, শান্তিপূর্ণভাবে ভোট গ্রহণ চলছে। তিনি জানান, ১৬টি কেন্দ্রে সাতজন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ছাড়াও বিজিবি, র‌্যাব, পুলিশ, ব্যাটালিয়ন পুলিশ, ব্যাটালিয়ন আনসার ও আনসার-ভিডিপির হাজার খানেক সদস্য মোতায়েন রয়েছে।

উল্লেখ্য, গত ৩০ জুলাই অনুষ্ঠিত সিলেট সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে অনিয়ম ও গোলযোগের কারণে ২৪ নম্বর ওয়ার্ডের গাজী বুরহান উদ্দিন গরম দেওয়ান সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও ২৭ নম্বর ওয়ার্ডের হবিনন্দী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের ভোট গ্রহণ স্থগিত করা হয়। এছাড়া সংরক্ষিত ৭ নং ওয়ার্ডে ২ জন প্রার্থীর প্রাপ্ত ভোট সমান হয়ে যাওয়ায় পুনরায় নির্বাচন হচ্ছে।

শেয়ার করুন