ম্যাচ ফিক্সিং : ১০ বছর নিষিদ্ধ পাকিস্তানি ওপেনার

স্পোর্টস ডেস্ক:: ম্যাচ ফিক্সিং কেলেঙ্কারির দায়ে ১০ বছর নিষিদ্ধ করা হয়েছে পাকিস্তানের সাবেক ওপেনার নাসির জামশেদকে। পাকিস্তান সুপার লিগে (পিএসএল) অসংখ্য ফিক্সিং কাণ্ডে বারবার তার নাম জড়িয়েছে। এর আগে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) স্পট ফিক্সিং করে পুলিশের হাতে ধরা পড়েছিলেন নাসির। গত বছর পাকিস্কান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি) তাকে সাময়িক নিষিদ্ধ করলেও সর্বশেষ পিএসএলে স্পট ফিক্সিং প্রমাণিত হওয়ায় এবার বড় শাস্তি দেওয়া হলো তাকে।

পিএসএলের গত বছরের আসরে স্পট ফিক্সিং নিয়ে তোলপাড় শুরু হয়েছিল পাকিস্তানের ক্রিকেটাঙ্গণে। এই সকল অপকর্মের পেছনে একটি নামই বারবার ঘুরেফিরে আসছিল- নাসির জামশেদ। পিসিবির আইনি উপদেষ্টা তফাজুল রিজভি জামশেদ তাকে সকল স্পট ফিক্সিংয়ের ‘নাটের গুরু’ বলেছিলেন। পিসিবি যে ৭টি ধারায় আচরণবিধি ভঙ্গের অভিযোগ তুলেছিলে জামশেদের বিপক্ষে, তার মধ্যে পাঁচটিতেই আচরণ ভঙ্গের প্রমাণ পেয়েছে ট্রাইব্যুনাল।

একই অভিযোগে জামশেদের দুই সঙ্গী শারজিল খান ও খালিদ লতিফ ৫ বছর করে নিষিদ্ধ হয়েছেন। নাসির জামশেদকে সব ধরণের ক্রিকেট থেকে ১০ বছরের নিষেধাজ্ঞা দেওয়ার ব্যাপারে পিসিবির আইনি উপদেষ্টা সংবাদমাধ্যমকে বলেছেন, ‘নাসির জামশেদের বিপক্ষে পিসিবি একের অধিক অভিযোগ গঠন করেছিল এবং ট্রাইব্যুনালে তা প্রমাণ হওয়ায় তাকে ১০ বছর নিষিদ্ধ করা হয়েছে। নিষেধাজ্ঞার এই মেয়াদ শেষেও সে ক্রিকেট কিংবা ক্রিকেট প্রশাসনের সঙ্গে জড়িত থাকতে পারবে না।’

শেয়ার করুন