এলইউমুন সম্মেলনের তৃতীয় দিনের সেশন চলছে

প্রতিনিধিদের মালনীছড়া চা বাগান পরিদর্শন এবং সাংস্কৃতিক সন্ধ্যা উপভোগ

মালনীছড়া কোম্পানী বাংলোয় সাংস্কৃতিক সন্ধ্যা উপভোগ করছেন দানবীর ড. রাগীব আলীসহ অন্য অতিথিবৃন্দ

সিলেটের সকাল রিপোর্ট॥ সিলেটের প্রথম বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় লিডিং ইউনিভার্সিটিকে দ্বিতীয় বারের মতো আয়োজিত লিডিং ইউনিভার্সিটি মডেল ইউনাইটেড ন্যাশন্স সম্মেলন (এলইউমুন)-এর আজ শনিবার তৃতীয় দিনের সেশন চলছে। আজ শনিবার সকাল ৯টা থেকে লিডিং ইউনিভার্সিটির রাগীবনগরস্থ স্থায়ী ক্যাম্পাসে এ সেশন শুরু হয়েছে। চলবে বিকাল ৫টা পর্যন্ত।
এদিকে, সম্মেলনের কমিটি সেশনের দ্বিতীয় দিনে শুক্রবার সন্ধ্যায় অংশগ্রহণকারী ৩৮০ জনেরও বেশী প্রতিনিধি উপমহাদেশের প্রথম চা বাগান মালনীছড়া পরিদর্শনে যান। তারা ঘুরে ঘুরে চা বাগানের সৌন্দর্য্য উপভোগ করেন।
মালনীছড়া পরিদর্শনকালে সিলেটের প্রথম বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় লিডিং ইউনিভার্সিটি ও প্রথম বেসরকারি মেডিক্যাল কলেজ রাগীব-রাবেয়া মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান দানবীর ড. রাগীব আলী তাদেরকে উষ্ণ অভ্যর্থনা জানান। এ সময় লিডিং ইউনিভার্সিটির ভিসি অধ্যাপক ড.কামরুজ্জামান চৌধুরী, রাগীব-রাবেয়া ফাউন্ডেশনের কো-চেয়ারম্যান আব্দুল হাই, ট্রাস্টি সাদিকা জান্নাত চৌধুরী এবং রাগীব-রাবেয়া ফাউন্ডেশনের সচিব ইঞ্জিনিয়ার লুৎফুর রহমান উপস্থিত ছিলেন।
এ সময় দানবীর ড. রাগীব আলী বলেন, উপমহাদেশের প্রথম চা বাগান হিসাবে মালনীছড়া দেখার প্রতি আকর্ষণ সবার। দেশ-বিদেশের অনেক গুণী ব্যক্তিত্ব বাগানটি পরিদর্শন করেছেন। তিনি প্রতিনিধি দলকে স্বাগত জানান। তাদের সম্মানে সেখানে এক সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানেরও আয়োজন করা হয়।

সেশনে অংশগ্রহণকারী প্রতিনিধিবৃন্দ-ছবি সিলেটের সকাল

সম্মেলনের দ্বিতীয় দিনে অংশগ্রহণকারী প্রতিনিধিরা জাতিসংঘের ৯টি কমিটির অধীনে তাদের তর্ক-বিতর্ক চালিয়ে যান। শুক্রবার সকাল ৮টায় লিডিং ইউনিভার্সিটির সুরমা টাওয়ার ক্যাম্পাসের সম্মুখ থেকে বিশেষ সুরক্ষা ব্যবস্থার মাধ্যমে তাদেরকে লিডিং ইউনিভার্সিটির স্থায়ী ক্যাম্পাস রাগীব নগরে নিয়ে যাওয়া হয়।
এরপর রেজিস্ট্রেশনের মাধ্যমে প্রত্যেক কমিটির প্রতিনিধিদের তাদের স্ব স্ব কমিটি রুমে পৌঁছে দেয়া হয়। সকাল ১০টায় জাতিসংঘের আদলে রোলকলের মাধ্যমে তাদের কমিটির প্রস্তাবিত সমস্যা মাধমের জন্য আলোচনা ও বিতর্ক শুরু হয়।
দুপুর দুইটায় প্রতিনিধিরা এক সাথে দুপুরের খাবার গ্রহণ করেন। এরপর আবার শুরু হয় সম্মেলনের মূল কার্যক্রম।
বিকাল চারটায় সব দেশের প্রতিনিধিরা একত্রে ছবি তোলেন।

সেশনে অংশগ্রহণকারী প্রতিনিধিবৃন্দ

এর পর প্রতিনিধিগণ একত্রে বাসে করে মালনীছড়ার চা বাগানের সৌন্দর্য উপভোগ করতে যান। সেখানে আয়োজিত মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে দ্বিতীয় দিনের অনুষ্ঠানের সমাপ্তি ঘটে।
আগামীকাল রোববার মধ্যাহ্নভোজের মধ্য দিয়ে চারদিনব্যাপী এ সম্মেলন শেষ হবে।

শেয়ার করুন