নিরাপত্তা চেয়ে সিকৃবি’র নিরাপত্তা কর্মীর জিডি

সিলেটের সকাল ডেস্ক :: সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের নিরাপত্তা কর্মী মো. ইউসুফ আলী নিজের নিরাপত্তা চেয়ে সাধারণ ডায়েরি করেছেন। গত রবিবার রাতে সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশ (এসএমপি)’র শাহপরাণ (রহ.) থানায় সাধারণ ডায়েরিটি (নং-৫৩২) করেন। জিডিতে কয়েক ব্যক্তির নাম উল্লেখ করে ওরা তার জীবনের প্রতি হুমকি বলে দাবি করেন।

মো. ইউসুফ আলী সিলেটের ওসমানীনগর উপজেলার ভাগলপুর গ্রামের মৃত আব্দুল আজিজের ছেলে। কর্মসূত্রে বর্তমানে তিনি শাহপরাণ থানার বালুচর আল-ইসলাহ এলাকায় বসবাস করছেন।

বাদী ইউসুফ আলী মৌলভীবাজার জেলার সদর উপজেলার মীরপুর এলাকার মজবিল মিয়ার ছেলে মুকিত মিয়া ও মতিন মিয়া, মতিন মিয়ার ছেলে রেবুল মিয়া, স্ত্রী রাজনা বেগম এবং মজবিল মিয়ার পুত্র মসউদ মিয়াকে অভিযুক্ত করে জিডিতে উল্লেখ করেন যে, বিবাদীগণ তার শ্বশুড়পক্ষীয় নিকটাত্মীয় হন। এই সুবাদে বিগত কিছুদিন পূর্বে বিবাদীদের ছেলে বা ভাতিজা লিটন মিয়ার সাথে বাদির ছোটবোন, বাংলাদেশ যুব মহিলালীগ সিলেট জেলা কমিটির নির্বাহী সদস্য এবং ওসমানীনগর উপজেলা শাখার সভানেত্রী কুলসুমা বেগমের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে সাংসারিক ক্ষেত্রে বনিবনা না হওয়ায় পরিবারের মধ্যে বিরোধ সৃষ্টি হয়। এর জের ধরে গত সপ্তাহে উপরোক্ত কুলসুমা বেগম বাদী হয়ে উপরোক্ত বিবাদীগণসহ আরো কয়েক ব্যক্তির উপর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে আদালতে মামলা দায়ের করেন। মামলাটি বর্তমানে তদন্ত পর্যায়ে রয়েছে।

এ কারণে বাদী ইউসুফ আলীর সাথে বিবাদীদের মনোমালিন্যের সূত্রপাত হলে বিবাদীগণ নানাভাবে বাদীকে হয়রানি এবং বাদীর জানমালের ক্ষতিসাধনের অপচেষ্টায় লিপ্ত। বিবাদীগণ নিজেদের নিয়োজিত অজ্ঞাতনামা লোকদের মোবাইল ফোন থেকে কল দিয়ে বাদী ইউসুফ আলীকে খুন-জখমসহ নানা রকমের হুমকী দিচ্ছে। বাংলাদেশ সরকারের গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনা সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকায় বাদীকে রাতের বেলা কর্তব্য পালন করতে হয়। তাই তিনি আশংকা করছেন বিবাদীগণ তার কোন ক্ষতি সাধন করতে পারে। এর আলোকে নিরাপত্তার স্বার্থে তিনি এসএমপি’র শাহপরাণ (রহ.) থানায় উক্ত জিডি করেন।

শেয়ার করুন