সাহিত্যে নোবেল পেলেন ব্রিটিশ ঔপন্যাসিক ইশিগুরো

সিলেটের সকাল ডেস্ক ।। সাহিত্যে ২০১৭ সালের নোবেল পুরস্কার পেলেন জাপানী বংশোদ্ভূত ব্রিটিশ ঔপন্যাসিক ও ছোটো গল্পকার কাজুরো ইশিগুরো। বৃহস্পতিবার নাম ঘোষণা করা হয়। সুইডিশ নোবেল কমিটির পক্ষ থেকে এই ব্রিটিশ লেখকের ব্যাপক প্রশংসা করে বলা হয়-‘এই লেখক নিজের আদর্শ ঠিক রেখে, আবেগপ্রবণ শক্তি দিয়ে বিশ্বের সঙ্গে আমাদের সংযোগ ঘটিয়েছেন।’

ইশিগুরোর উপন্যাসগুলোর মধ্যে সবচেয়ে জনপ্রিয় হলো ‘দ্য রিমেইন্স অব দ্য ডে’ এবং ‘নেভার লেট মি গো’। এই দুটি উপন্যাস অবলম্বনে চলচ্চিত্রও তৈরি করা হয়েছে।

ইশিগুরোর জন্ম ১৯৫৪ সালে জাপানের নাগাশাকি শহরে। তার বয়স যখন ৫ তখন পরিবারের সঙ্গে ইংল্যান্ডে আসেন। ইংরেজিভাষী জগতের অন্যতম নন্দিত লেখক তিনি। তিনি ৪ বার খ্যাতিমান ম্যান বুকার পুরস্কার অর্জন করেন তার ৪ উপন্যাসের জন্য। দি টাইমস ম্যাগাজিন তাকে ১৯৪৫ সালের পরের শ্রেষ্ঠ ৫০ জন ব্রিটিশ লেখকদের তালিকায় ৩২তম বলে সম্মান জানিয়েছিল। তার শেষ উপন্যাসটি প্রকাশিত হয় ২০১৫ সালে, ‘দ্য ব্যুরিড জায়ান্ট’ (সমাহিত দানব) নামে। তবে নোবেল সাহিত্য পুরস্কার কোনও একটি সাহিত্যকর্মের জন্য নয়, লেখকের সামগ্রিক সাহিত্যকীর্তির জন্য দেয়া হয়ে থাকে। ১১৪ বছর আগে স্যার আলফ্রেড নোবেল এই পুরস্কারের প্রবর্তন করেন।

গত বছরে মার্কিন গীতিকার বব ডিলানের এই পুরস্কার পাওয়ায় যে বিতর্ক ও বিষ্ময় ছিলো, একজন ব্রিটিশ সাহিত্যিককে পুরস্কৃত করে নোবেল একাডেমি পুরস্কারটিকে আবার সনাতন সাহিত্য ঘরানায় ফিরিয়ে নিয়ে এলো।

ইশিগুরোর উপন্যাসের একটি বৈশিষ্ঠ্য হলো তা কোনও সমাধানে পৌঁছায় না। তার চরিত্ররা অতীতে যে সমস্যা-সংঘাতে পড়ে, তা অমীমাংসিতই থেকে যায়। বিষণ্নতায় শেষ হয় তার কাহিনী।

শেয়ার করুন