সাংবাদিকের উপর হামলার ঘটনায় শাবির চার ছাত্রলীগ কর্মী বহিষ্কার

শাবি প্রতিনিধি ।। শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে এক স্কুল ছাত্রীকে যৌন হয়রানি ও এর প্রতিবাদ করায় ক্যাম্পাসে কর্মরত দুই সাংবাদিকের উপর হামলার ঘটনায় বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি সঞ্জীবন চক্রবর্তী পার্থ অনুসারী চার কর্মীকে বহিষ্কার করা হয়েছে। একই সাথে পার্থকে সতর্কও করে দেয়া হয়েছে।

শনিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০৫ তম সিন্ডিকেট সভায় এ সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে বলে সিলেটের সকালকে নিশ্চিত করেন শাবি রেজিস্ট্রার মোঃ ইশফাকুল হোসেন।

বহিষ্কৃতরা শাবি শাখা ছাত্রলীগ (স্থগিত কমিটি) সভাপতি সঞ্জীবন চক্রবর্তী পার্থের অনুসারী। তারা হলেন সমাজকর্ম বিভাগের শিক্ষার্থী মাহমুদুল হাসান রুদ্র, পরিসংখ্যান বিভাগের মো. সাজ্জাদ হোসেন রিয়াদ, নৃবিজ্ঞান বিভাগের রাহাত সিদ্দীকি, পলিটিক্যাল স্টাডিজ বিভাগের সুমন সরকার জনি। এর মধ্যে রাহাত এবং সুমনকে বহিষ্কারের পাশাপাশি এক হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়েছে। এছাড়া ঘটনার সময় দায়িত্বশীল ভুমিকা পালন না করার কারণে পার্থকে সতর্ক করাার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানান রেজিস্ট্রার মো. ইশফাকুল হোসেন।

শাবির সিন্ডিকেট সদস্য অধ্যাপক ড. কবির হোসেন জানান, বিশ্ববিদ্যালয়ের শৃঙ্খলা কমিটির সুপারিশ অনুযায়ী অভিযুক্তদের এক সেমিস্টারের জন্য বহিষ্কার করেছে প্রশাসন। এছাড়াও কারো কারো সতর্ক ও জরিমানা করা হয়েছে বলে জানান।

গত ৮ এপ্রিল শনিবার স্কুল ছাত্রীকে যৌন হয়রানির ঘটনার প্রতিবাদ করায় সভাপতি পার্থর নির্দেশে বহিষ্কৃতরা শাবি প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ও ডেইলি অবজারভারের সাংবাদিক সরদার আব্বাস আলী ও সহ-সভাপতি ও দৈনিক সকালের খবরের সাংবাদিক সৈয়দ নবীউল আলম দিপুর উপর হামলা করে।

সরদার আব্বাস আলী বলেন, বিচার বিভাগীয় তদন্তে অপরাধ প্রমাণিত হলেও এর মধ্যে কারোও কারোও শাস্তির মাত্রা কম হয়েছে বলে মনে করি। তবুও এ ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ায় বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে সাধুবাদ জানাই। ভবিষ্যতে অপরাধ করে যেন কেউ ছাড় না পায় সেদিকে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন সজাগ থাকবে বলে তিনি আশাবাদ প্রকাশ করেন

শেয়ার করুন