‘স্বামীর সাথে গিয়েছিলেন উপশহরের সেই তরুণী’

সিলেটের সকাল রিপোর্ট ॥ উপশহর থেকে সেই তরুণী তার স্বামী সোহেল আরমানের সাথে গিয়েছিলেন। বৃহস্পতিবার রাত ২টায় ওই তরুণীকে উদ্ধার করে শাহপরান থানা পুলিশ। এ প্রতিবেদকের সাথে তরুণী দাবি করে সোহেল আরমান তার স্বামী।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বৃহস্পতিবার রাত প্রায় সোয়া দশটার দিকে উপশহরের বি ব্লক সংলগ্ন মসজিদের পাশের মেইন রাস্তা দিয়ে সিএনজিচালিত অটোরিকশাযোগে ওসমানীনগরের এক তরুণী এবং তার মা যাচ্ছিলেন। উপশহর এবিসি পয়েন্টে আসা মাত্রই শাহপরান থানার এস আই নুরুল ইসলামের নেতৃত্বে একদল পুলিশ গাড়ীটি সিগন্যাল দিয়ে আটক করে গাড়ীর কাগজ-পত্র চেক করছিল। এরই মধ্যে কয়েকজন যুবক মোটর সাইকেল মহড়া দিয়ে এই মেয়েটিকে পুলিশের সামনে থেকে অপহরণ করে নিয়ে যায় বলে অভিযোগ উঠে। এর প্রতিবাদে উপশহরে কিছুক্ষণ সড়ক অবরোধও হয়। খবর পেয়ে স্থানীয় কাউন্সিলর সৈয়দ মিসবাহ উদ্দিনও ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন।
এরপর পুলিশ তরুণীর মাকে থানায় নিয়ে যায়। তরুণীকে উদ্ধারে পুলিশের দুটি টিমকে মাঠে নামানো হয়। রাত ২টার দিকে তরুণীকে উদ্ধার করতে সক্ষম হয় পুলিশ।
শাহপরান থানার ওসি আখতার হোসেন তরুণীকে উদ্ধারের বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, তরুণীটি দাবি করছে-সে তার স্বামীর সাথে চলে গিয়েছিল। পুলিশ বিষয়টি তদন্ত করে দেখছে।

শেয়ার করুন