বছরজুড়ে শাবি

Saltamami-2015-sm20151218141549জাহিদ হাসান, শাবি : দেশের সর্বপ্রথম ডিজিটাল ও বৃহত্তম বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় সিলেটের শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (শাবি)। নানা কারণেই বছরজুড়ে দেশ-বিদেশের সকল স্থানে আলোচনার কেন্দ্রবিন্দু ছিল এ সর্বোচ্চ বিদ্যাপীঠটি।

শাবি শাখা ছাত্রলীগের সংঘর্ষের ঘটনায় দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর শাবি ক্যাম্পাস খুলে দেয়া, দীর্ঘ দুবছর পর ছাত্রলীগ কমিটির ক্যাম্পাসে প্রত্যাবর্তন, উপাচার্যবিরোধী আন্দোলন, শিক্ষক ও উপাচার্য লাঞ্চনার পাল্টাপাল্টি অভিযোগ, শিক্ষকদের ওপর ছাত্রলীগের হামলায় ফেসবুকে সাস্টিয়ানদের নিন্দার ঝড়, ভর্তি পরীক্ষার চ্যালেঞ্জের মধ্যে বছরজুড়ে আলোচনার কেন্দ্রে থাকে এ বিশ্ববিদ্যালয়।

পাশাপাশি ওয়েবম্যাট্রিক্সের র‌্যাংকিংয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের দেশসেরা অবস্থান, প্রোগগ্রামিং প্রতিযোগীতায় বিশ্বে ৫৪তম হওয়া, সিএসই কার্নিভাল, অলিম্পিয়াড উৎসব ও বিতর্ক প্রতিযোগীতায় সাফল্য ছিল উল্লেখযোগ্য।

অস্ত্র উদ্ধার ও বিশ্ববিদ্যালয় খোলা:
গত ২০১৪ সালের ২০ নভেম্বর ছাত্রলীগের কমিটির ক্যাম্পাসে প্রত্যাবর্তন ইস্যুকে কেন্দ্র করে ভয়াবহ সংঘর্ষ ঘটে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপে। সংঘর্ষে সুমন চন্দ্র দাস নামের এক প্রাইভেট শিক্ষার্থী প্রতিপক্ষের গুলির আঘাতে নিহত হয় ও আহত হয় প্রায় অর্ধশতাধিক। এর ফলে দুই মাস ক্যাম্পাস বন্ধ ঘোষণা করা হয়।

তারপর ১৮ জানুয়ারি শাবি প্রশাসন ছাত্রদের আবাসিক হলে অভিযান চালিয়ে রাম দা, চাপাতিসহ বিপুল পরিমাণ অস্ত্র উদ্ধার করে। তবে ২০ জানুয়ারি শিক্ষার্থীদের লেখাপড়ার পরিবেশ ফিরিয়ে আনতে চালু করা হয় বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস।

সহিংসতার বিরুদ্ধে র‌্যালি গণস্বাক্ষর:
শাবি প্রেসক্লাবের উদ্যোগে ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০১৫তে ‘জনসাধারনের উপর পেট্রোল বোমা নিক্ষেপসহ সকল সহিংসতার অবসান হোক’ এই ব্যানারে গণস্বাক্ষর, র‌্যালি ও সমাবেশ কর্মসূচি পালন করা হয়। সহিংসতার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানাতে এ কর্মসূচিতে অংশগ্রহণ করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থী , কর্মকর্তা-কর্মচারী, সামাজিক, সাংস্কৃতিক, রাজনৈতিক ও স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের কর্মীরা ।

গুগলে চাকরি দুই শিক্ষার্থীর:
এবছর শাবি থেকে গুগলে যোগ দেন কম্পিউটার বিজ্ঞান ও প্রকৌশল বিভাগের দুই শিক্ষার্থী । সৈয়দ শাহরিয়ার মঞ্জুর দ্বীপকে ফেব্রুয়ারীতে এবং মার্চে আরেক শিক্ষার্থী ফরহাদ আহমেদকে নিশ্চিত করে গুগল কর্তৃপক্ষ।

ছাত্রলীগের কমিটি:
দীর্ঘদিন হল এবং ক্যাম্পাসের বাইরে অবস্থানের পর গত মার্চে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে ফিরে আসে ছাত্রলীগের কমিটির নেতাকর্মীরা। ২০১৩ সালে কমিটি ঘোষণার পর থেকে হল এবং ক্যাম্পাসে অবস্থান নিয়ে দীর্ঘ অচলাবস্থার পর ২০১৪ সালের ২০ নভেম্বর সংঘর্ষ হয়।

২০১৫ এর ১৬ মার্চ সকালে শাবি ছাত্রলীগের সভাপতি সঞ্জীবন চক্রবর্তী পার্থ, সহ-সভাপতি আবু সাঈদ আকন্দ, সাধারণ সম্পাদক ইমরান খান ও যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সাজিদুল ইসলাম সবুজের নেতৃত্বে ক্যাম্পাসে ফিরে আসে ছাত্রলীগের কমিটির নেতাকর্মীরা।

অপরদিকে কমিটির সহ-সভাপতি অঞ্জন রায়, সাবেক কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ নেতা উত্তম কুমার দাস ও বিজিত লাল দাস গ্রুপের নেতাকর্মীরা দীর্ঘ প্রায় দুবছর কমিটিকে ক্যাম্পাসে প্রবেশ হতে বিরত রাখেন।

ওয়েবম্যাট্রিক্সে দেশসেরা শাবি:
বিশ্বের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের মান নিয়ে গবেষণাকারী সংস্থা ওয়েবমেট্রিক্স ইনফোর র‌্যাকিংয়ে গত মার্চে দেশের মধ্যে প্রথম স্থান অর্জন করে শাবি। পহেলা এপ্রিল উপাচার্যের নেতৃত্বে এ নিয়ে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা বের করা হয়। শাবির পড়ালেখার মান, গবেষণা ও শিক্ষার পরিবেশের উপর ভিত্তি করে এই র‌্যাংকিং করা হয়।

বছরজুড়ে উপাচার্য বিরোধী আন্দোলন:
উপাচার্য অধ্যাপক ড. আমিনুল হক ভূইয়ার বিরুদ্ধে অসদাচরণ, দুর্নীতি ও নানা অনিয়মের অভিযোগ এনে গত ১৩ এপ্রিল থেকে আন্দোলন শুরু করে আওয়ামী পন্থী শিক্ষকদের একাংশ ‘মহান মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উদ্বুদ্ধ শিক্ষক ফোরাম’। পরে ভিসির প্রত্যাহারের দাবিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের ৩৭টি পদ থেকে বিশিষ্ট লেখক অধ্যাপক ড. মুহম্মদ জাফর ইকবাল সহ ৩৫ জন শিক্ষক একযোগে পদত্যাগ করেন।

অধ্যাপক জাফর ইকবালকে কটুক্তি:
সিলেট ৩ আসনের সাংসদ মাহমুদ সামাদ চৌধুরী কয়েস চৌধুরী ৯ মে শনিবার সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জে উপজেলা সদরের একটি কমিউনিটি সেন্টারে হাজী সাজ্জাদ আলী কল্যাণ ট্রাস্টের মেধা বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠানে অধ্যাপক জাফর ইকবালকে সিলেট বিদ্বেষী আখ্যা দিয়ে বলেন ‘আমি যদি বড় কিছু হতাম তাহলে জাফর ইকবালকে কোর্ট পয়েন্টে ধরে এনে চাবুক মারতাম। যার প্রেক্ষিতে ফুঁসে উঠে ক্যাম্পাসের শিক্ষার্থীসহ তরুণ সমাজ।

প্রোগ্রামিংয়ে বিশ্বে ৫৪ তম শাবি:
কম্পিউটার প্রোগ্রামিং প্রতিযোগীতার সবচেয়ে বড় আসর এসিএম আইসিপিসি ২০১৫ এর ওয়ার্ল্ড ফাইনালে বিশে^র বড় বড় বিশ^বিদ্যালয়কে পেছনে ফেলে ৫৪ তম স্থান অর্জন করে শাবি।

২০ মে মরক্কোর এসিএম আইসিপিসি এর ৩৯ তম আসরে ১৩টি সমস্যার ভিতর ৬ টির সমাধান করে ৫৪ তম স্থান দখল করে শাবির দলটি। এ প্রতিযোগীতায় শাবি পিছনে ফেলে এসেছে স্ট্যানফোর্ড, কর্নেল, প্রিন্সটন , নিউসাউথ ওয়েলস এর মতো নামিদামী বিশ^বিদ্যালয়গুলোকে।

অনন্ত বিজয় দাস হত্যা:
শাবি’র সমাজকর্ম বিভাগের প্রাক্তন শিক্ষার্থী ও মুক্তমনা লেখক অনন্ত বিজয় দাসকে তার বাসার সামনে নির্মমভাবে হত্যার ঘটনার প্রতিবাদে সোচ্চার হয়ে উঠে শাবির শিক্ষার্থীরা। অনন্ত বিজয় দাস সিলেটের একটি ব্যাংকে কর্মরত ছিলেন। এমনকি তিনি গণজাগরণ মঞ্চের অন্যতম সংগঠক ছিলেন। সিলেট থেকে প্রকাশিত বিজ্ঞান বিষয়ক পত্রিকা ‘যুক্তি’ তিনি সম্পাদনা করতেন।

শাবির বার্ষিক বাজেট :
২০১৫-১৬ অর্থ বছরের মোট ৫৮ কোটি ৭২ লক্ষ টাকার বাজেটের মধ্যে বেতন ও ভাতাদি খাতে বরাদ্ধ করা হয় ৪১ কোটি ৫ লাখ টাকা। আর মাত্র ১০ লাখ টাকা বরাদ্দ করা হয়ে গবেষণা খাতে। উচ্চ শিক্ষা প্রতিষ্ঠনের বাজেটে গাবেষণা খাতে কোন বরাদ্দ না দেয়াকে শিক্ষার রাজনৈতিকরণ আর বাণিজ্যকরণের প্রয়াস হিসেবে দেখছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক , প্রগতিশীল ছাত্র সংগঠন ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতারা।

শিক্ষক লাঞ্চনার অভিযোগ:
গত ২৪ আগস্ট আগে শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে বিভিন্ন নির্দেশনাসহ একটি চিঠি আসায় ৩০ আগস্ট সকাল ১০টায় বোর্ড অব অ্যাডভান্সড স্টাডিস ও বিকেল ৩ টায় একাডেমিক কাউন্সিলের সভা ডাকেন উপাচার্য অধ্যাপক আমিনুল হক ভূইয়া।

আর এই সভা প্রতিহত করার ঘোষণা দেন আন্দোলনকারী শিক্ষকেরা। এরই প্রেক্ষিতে ঐদিন সকাল ৯ থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত ভিসি ভবনের সামনে অবস্থান কর্মসূচি পালনের ঘোষণা দেন তারা।

শিক্ষকদের ঘোষিত আন্দোলন প্রতিহত করতে সকাল সাড়ে ৫টার দিকে উপাচার্য ভবনের সামনে অবস্থান নেয় ছাত্রলীগ। পরে সকাল ৭টায় আন্দোলনকারী শিক্ষকরা উপস্থিত হলে ছাত্রলীগের সাথে বাক-বিতন্ডা ও ব্যানার টানাটানি সহ হামলার অভিযোগ ওঠে।

যদিও ঘটনা অস্বীকার করে শাখা ছাত্রলীগ। অপরদিকে উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আমিনুল হক ভূইয়া বলেন, তাকে আন্দোলনকারীরা লাঞ্চিত করেছেন। এ ঘটনায় পুরো দেশে আলোচনা সমালোচনার ঝড় ওঠে।

ছাত্রলীগ নেতাদের অধ্যাহতি:
অবশেষে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ শাবি ছাত্রলীগের তিন নেতাকে বিশ্ববিদ্যালয় শাখার দ্বায়িত্ব থেকে ‘সাময়িক অব্যাহতি’ প্রদান করে। পাশাপাশি শাহজালাল বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন একটি তদন্ত কমিটি গঠন এবং চার ছাত্রলীগ কর্মীকে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ‘সাময়িক বহিষ্কার’ করে।
পরবর্তীতে আন্দোলনের নানা পথ পরিক্রমা অতিক্রম করে দীর্ঘ ছয় মাস পর অক্টোবরে শিক্ষামন্ত্রীর হস্তক্ষেপে উপাচার্যবিরোধী আন্দোলন স্থগিত করেন আন্দোলনকারী শিক্ষকরা।

শিক্ষকদের বিভিন্ন গ্রুপ এবং শিক্ষক সমিতিতে বিভেদ:
আন্দোলনের সময় উপাচার্যের পক্ষে ‘মহান মুক্তিযুদ্ধ ও মুক্তচিন্তা চর্চায় ঐক্যবদ্ধ শিক্ষকবৃন্দ ফোরাম’ অবস্থান গ্রহণ করেন এবং ৩০ আগস্টের ঘটনায় উপাচার্য লাঞ্চিত হয়েছেন বলে অভিযোগ করেন। পাশাপাশি বিএনপি-জামায়াত সমর্থিত শিক্ষক ফোরামও উপাচার্যের সমর্থন দেন।

আন্দোলন ইস্যুকে কেন্দ্র করে শিক্ষকদের বিভিন্ন গ্রুপ এবং শিক্ষক সমিতিতে প্রকাশ্য দ্বন্দ দেখা দেয়। শিক্ষক সমিতির একাংশ সভাপতি অধ্যাপক ড. কবির হোসেনের নেতৃত্বে উপাচার্যের পক্ষে ও অপরদিকে অন্য অংশ সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. আব্দুল গণির নেতৃত্বে উপাচার্যবিরোধী আন্দোলনকে সমর্থন দেন।

গণজাগরণ মঞ্চ কর্মী শাহরিয়ারের রহস্যজনক মৃত্যু:
গত ৪ সেপ্টেম্বর শাবির স্থাপত্য বিভাগের পঞ্চম বর্ষের শিক্ষার্থী এবং সিলেট গণজাগরণ মঞ্চের সক্রিয় কর্মী মোহাম্মদ শাহরিয়ার মজুমদারের রহস্যজনক মৃত্যুতে স্তম্ভিত হয়ে যায় বিশ^বিদ্যালয়। পুলিশি রিপোর্টে আতœহত্যা দেখালেও তা মানতে নারাজ তার বন্ধু-বান্ধব সহ শাবির শিক্ষার্থীরা।

খুন করা অপরাধ না!
মুক্তমনা লেখক ও শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ^বিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. মুহম্মদ জাফর ইকবাল আক্ষেপ করে বলেছেন, খুন করা অপরাধ না। কিন্তু ওরা ব্লগে যেটা লেখে সেটা হচ্ছে অপরাধ। আমরা কি এই দেশ চেয়েছিলাম। এমন দেশের জন্য কি অপেক্ষা করছিলাম।এছাড়া সরকার প্রকাশক ও ব্লগার হত্যার খুনিদের ধরতে আন্তরিক নয় বলেও মন্তব্য করেন।

সরকারের উচ্চ পর্যায়ের লোকজন নিশংস্বভাবে এমন হত্যাকান্ডকে বিচ্ছিন্ন ঘটনা বলায় তার সমালোচনা করে তিনি বলেন, একই দিনে একই সময়ে দুই জায়গায় দুইজন লেখক প্রকাশকের ওপর হামলা করা হয়েছে। এটা কোন বিচ্ছিন্ন ঘটনা হতে পারে না। এটাকে বিচ্ছিন্ন বলা হয় কিভাবে? হয় আমি বিচ্ছিনের মানে জানি না অথবা উনি বিচ্ছিন্নের মানে বুঝেন না।

মুক্তমনা লেখক, বগার ও প্রকাশকদের উপর নৃশংস হামলা ও হত্যার প্রতিবাদে বুধবার দুপুর সাড়ে ১২টায় বিশ^বিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় লাইব্রেরীর সামনে অনুষ্ঠিত সমাবেশে এসব কথা বলেন তিনি।

২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষা:
নৈতিক কারণেই ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেননি মহান মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উদ্বুদ্ধ শিক্ষক ফোরাম। নিয়মিত ক্লাস-পরীক্ষা নিলেও উপাচার্য অধ্যাপক ড.আমিনুল হক ভূঁইয়ার সাথে কাজ না করায় ১৪ নভেম্বর ভর্তি পরীক্ষায় নৈতিক দিক থেকেই পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেননি বলে জানান ফোরামের আহ্বায়ক অধ্যাপক ড. সৈয়দ সামসুল আলম।

তবে ভর্তি পরীক্ষায় প্রক্সির দায়ে এক বছরের কারাদন্ড প্রদান করা হয়েছে বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র নাসির হোসাইনকে।
তিনি বুয়েটের সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষ প্রথম সেমিস্টারের ছাত্র। তার গ্রামের বাড়ি ঝিনাইদাহ জেলায়।

এবার পাশের হার ৭৮ শতাংশ। যা গত কয়েকবারের তুলনায় এবার পাশের হার বৃদ্ধি পেয়েছে বলে জানান ভর্তি পরীক্ষা কমিটির সভাপতি অধ্যাপক নারায়ণ সাহা। ভর্তি পরীক্ষায় ৩২ হাজার ৭৭৫জন অংশগ্রহণ করে মোট ২৫ হাজার ৫৭৮জন শিক্ষার্থী পাশ করেন।

সিএসই কার্নিভাল:
শাবি সিএসই সোসাইটির সহযোগীতায় দেশের অন্যতম বৃহৎ জাতীয় ইভেন্ট সিএসই কার্নিভাল ২৭ ও ২৮ নভেম্বর অনুষ্ঠিত হয়। ৫ম বারের মত বিশ^বিদ্যালয়ের কম্পিউটার বিজ্ঞান ও প্রকৌশল বিভাগ এ কার্নিভালের আয়োজন করে। দেশের ৫০ টি বিশ^বিদ্যালয় থেকে প্রতিযোগীরা অংশ নেয় এ কার্নিভালে। প্রতিযোগিতায় শাবির টিম ২য় স্থান অধিকার করে।

প্রথম ইনকিউবেশন সেন্টার :
দেশকে এগিয়ে নিতে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে দেশের প্রথম ইনকিউবেশন সেন্টার হবে। এছাড়া দেশের প্রথম তারবিহীন ওয়াইফাই, হটস্পোট, মোবাইলে ভর্তি প্রক্রিয়া, সার্চ ইঞ্জিন পিপিলীকারও সৃষ্টি হয়েছে এ ঐতিহ্যবাহী ক্যাম্পাস থেকে।
দেশের প্রথম ইনকুবেশন সেন্টারও এই প্রতিষ্ঠানে প্রথম হবে বলে ঘোষণা দেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনায়েদ আহমেদ পলক। তবে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ যত বড় জায়গা দিবে ইনকুভেশন সেন্টারও তত বড় হবে। শাবিতে অত্যাধুনিক ল্যাবরেটরি করা বাবদ প্রথম ধাপে ৪০ লাখ টাকা অনুদান দেন। তবে পরে আরো বরাদ্দ দেবেন বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

শিক্ষকের টাকা ছিনতাই, অতঃপর রিমান্ড:
শাবির রসায়ন বিভাগের সহকারি অধ্যাপক বেলাল আহমদের ৫ লাখ টাকা ছিনতাইয়ের ঘটনায় সিলেট নগরী থেকে দুই ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গ্রেফতারকৃতরা হলেন- ছাতক থানার লাকেশ্বর গ্রামের মৃত তহুর মিয়ার পুত্র জুবেল আহমদ (২৪)। তিনি বর্তমানে নগরীর সুবিদবাজার বনকলাপাড়া ফাতেমা ভিলা ২১/১ নং বাসার বাসিন্দা। এছাড়া আরেকজন কুমিল্লা জেলার বুড়িচং থানার চরকা এলাকার মিরপুর গ্রামের সবুজ মিয়ার পুত্র মো. সজিব আহমদ (২০)। সে বর্তমানে নগরীর শামীমাবাদ এলাকার ৮৭ নং বাসার বাসিন্দা।

মঙ্গলবার মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা কোতোয়ালী থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. কামাল হোসেন গ্রেফতারকৃতদের মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট (আমালী-১) মো. সাহেদুল করিমের আদালতে হাজির করে তাদের বিরুদ্ধে ৭ দিনের রিমান্ডের আবেদন জানান। এসময় আদালত রিমান্ড শুনানী শেষে তাদের ৩ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় হ্যন্ডবলে চ্যাম্পিয়ন:
দেশের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর অংশগ্রহণে আন্তঃ বিশ^বিদ্যালয় হ্যান্ডবল প্রতিযোগিতাতে (ছাত্র) চ্যাম্পিয়ন হয় শাবি। জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়কে ১৯-৮ ব্যবধানে হারিয়ে এ গৌরব অর্জন করে শাবির হ্যান্ডবল টিম।

ন্যাশনাল গার্লস প্রোগ্রামিংয়ে চ্যাম্পিয়ন:
ন্যাশনাল গার্লস প্রোগ্রামিং প্রতিযোগীতায় শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ^বিদ্যালয়ের (শাবি) টিম ‘সাস্ট টুইংকেলস্’ চ্যাম্পিয়ন হয়েছে। ১২ ডিসেম্বর ঢাকার ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটিতে এ প্রতিযোগীতা অনুষ্ঠিত হয়। প্রতিযোগিতায় প্রথম রানার আপ হয় ‘চুয়েট স্পার্কলস’ এবং দ্বিতীয় রানার আপ হয় ‘ঢাবি টিম ওয়ান’। অনুষ্ঠিত এ প্রতিযোগিতায় সারাদেশের স্কুল-কলেজ এবং ইউনিভার্সিটি পর্যায় থেকে ৬৪টি টিম অংশগ্রহণ করে।

‘সংবাদপত্রে মুক্তিযুদ্ধ’ শীর্ষক আলোকচিত্র প্রদর্শনী :
১৯৭১ সালের মহান মুক্তিযুদ্ধের সময় দেশী-বিদেশী বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদ এবং সাংবাদিকদের ভূমিকা সম্বলিত বিভিন্ন আলোকচিত্রের প্রদর্শনী ছিলো বছরের অন্যতম আকর্ষনীয় অনুষ্ঠান। বিজয়ের মাসে শাহজালাল বিশ^বিদ্যালয় প্রেসক্লাবের আয়োজনে ‘সংবাদপত্রে মুক্তিযুদ্ধ’ শীর্ষক আলোকচিত্র প্রদর্শনীতে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক-শিক্ষার্থীসহ দেশের বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও দর্শনার্থীদের উপচে পড়া ভিড় লক্ষ্য করা যায়।

শাবির গর্ব বিজ্ঞানী ড. নিজাম উদ্দিন:
রসায়ন বিভাগের অধ্যাপক ড. মো. নিজাম উদ্দিন বিজ্ঞান গবেষণায় তিনি শাবিকে নিয়ে গেছেন এক অনন্য উচ্চতায়। ন্যানো টেকনোলজী প্রযুক্তিকে কাজে লাগিয়ে স্বল্প ব্যয়ে সহজলভ্য উপাদান থেকে বিভিন্ন ধরনের আস্তরণ তৈরি করেছেন, যা প্রচলিত সাধারণ কাঁচের উপর ব্যবহার করে সূর্যালোকের উপস্থিতিতে পানি পরিষ্কার করার ক্ষেত্রে এবং এন্টিব্যাক্টেরিয়াল এজেন্ট হিসেবে ব্যবহার করা যায়।

আমেরিকার বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় ড. মো. নিজাম উদ্দিনের আবিষ্কারের স্বীকৃতিস্বরূপ তার সাথে যৌথ গবেষণা প্রকল্প শুরু করে। এছাড়াও তিনি তুর্কি, দক্ষিণ কোরিয়া, জাপানের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের সাথে যৌথ গবেষণা কাজ করে যাচ্ছেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছ থেকে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের সর্বোচ্চ গবেষণা অনুদান লাভ, ‘বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন’ এবং শাবি রিসার্চ সেন্টার ছাড়াও ইতালির “দ্যা ওয়ার্ল্ড একাডেমী অব সায়েন্স” হতে বিভিন্ন সময়ে রিসার্চ গ্র্যান্ট অ্যাওয়ার্ড লাভ করেছেন বিশ্ববরেণ্য এই বিজ্ঞানী। এছাড়া তিনি ভাইস চ্যান্সেলর অ্যাওয়ার্ড, জাপান সরকারের মনবসো অ্যাওয়ার্ড লাভসহ নাকাজিমা ফাউন্ডেশন, জাপান পরমাণু শক্তি এজেন্সি, কোরিয়ান রিসার্চ ফাউন্ডেশন ও তুরস্কের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের ফেলোশিপ লাভ করেন।

পাই’র এক কিলো:
আন্তর্জাতিক পাই দিবস উপলক্ষ্যে বিজ্ঞান বিষয়ক সংগঠন ‘বিজ্ঞানের জন্য ভালবাসা’ ক্যাম্পাসের এক কিলোমিটার সড়কে পাই’র মানের পথচিত্র অংকন করে।

নতুন বিভাগ ‘যন্ত্র প্রকৌশল’ এর অনুমোদন:
বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনের অনুমোদনের ভিত্তিতে ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষ থেকে যোগ হয়েছে যন্ত্র প্রকৌশল নামে একটি নতুন বিভাগ।

ভাষা ইন্সটিটিউট:
বছরের শেষ দিকে এসে একটি আধুনিক ভাষা ইন্সটিটিউট স্থাপনের অনুমোদন পায় শাবি। বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশন শীঘ্রই চালু করে দিবে এই নতুন ইন্সটিটিউট বলে জানান শাবি উপাচার্য অধ্যাপক ড. আমিনুল হক ভূইয়া।

শেয়ার করুন