শাবিতে তুচ্ছ ঘটনায় মারামারি : আহত ৩

1 (29)শাবি প্রতিনিধি : ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ^বিদ্যালয়ে (শাবি) দুই বিভাগের শিক্ষার্থীদের মাঝে মারামারির ঘটনা ঘটেছে।

রোববার বিকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় খেলার মাঠে নৃবিজ্ঞান বিভাগ এবং শিল্প ও উৎপাদন প্রকৌশল বিভাগের শিক্ষার্থীদের মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটে।

দুই বিভাগের শিক্ষার্থীদের মাঝে মারামারির ঘটনায় ৩জন আহত হয়েছেন। তারা হলেন- শিল্প ও উৎপাদন প্রকৌশল বিভাগের ১ম বর্ষ ২য় সেমিস্টারের শিক্ষার্থী আরিফ, রাদিন, মুসা। তবে আরিফকে গুরুতর অবস্থায় সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে বলে জানান তার সহপাঠীরা।

সূত্র জানায়, রোববার বিকালের দিকে বিশ^বিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় খেলার মাঠে নৃবিজ্ঞান বিভাগ ও শিল্প ও উৎপাদন প্রকৌশল বিভাগের ১ম বর্ষ ২য় সেমিস্টারের শিক্ষার্থীদের ফুটবল খেলা ছিল। খেলায় শিল্প ও উৎপাদন প্রকৌশল বিভাগ জয় লাভ করে। তবে খেলার মাঝে দুই দলের মধ্যে বিভিন্ন ধরনের স্লেজিং ও উত্তেজনা বিরাজ করছিল।

এসময় নৃবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থীরা সহকারী প্রক্টর ও শিল্প ও উৎপাদন প্রকৌশল বিভাগের প্রভাষক জাহিদ হাসানকে লাঞ্চিত করে।
এ ঘটনার প্রতিবাদে শিল্প ও উৎপাদন প্রকৌশল বিভাগের শিক্ষার্থীরা গোলচত্ত্বরে বিক্ষোভ ও অবস্থান নিয়ে বিশ^বিদ্যালয়ের পরিবহন ব্যবস্থা বন্ধ করে দেয়। এসময় তারা হামলার সাথে জড়িতদের বহিষ্কারের দাবি জানায়।

এদিকে, ক্যাম্পাসের বাইরে বসবাসরত শাবির শিক্ষার্থীরা ছুটির পরেও বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবহনে করে যেতে পারে না। এঘটনায় তারা বিড়ম্বনার শিকার হয় বলে জানান অনেকে।

অপরদিকে, নৃবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থীরা তাদের বিভাগের দুই শিক্ষককে লাঞ্চনা করা হয়েছে বলে দাবি করে। এ বিষয়ে জানতে চাইলে নৃবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষক মো. মুনজুরুল হায়দার জানান, ‘আমরা ঘটনা স্থলে গিয়ে উত্তেজিত শিক্ষার্থীদের ফিরিয়ে আনতে চেষ্টা করেছি। তবে ঘটনার জন্য এককভাবে কাউকে দায়ী করা যায়না।’

প্রক্টর অধ্যাপক ড. কামরুজ্জামান চৌধুরী বলেন, প্রাথমিকভাবে আমরা সমাধান করেছি। তবে ঘটনা তদন্তে একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে। যে কোন ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে ক্যাম্পাসে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে বলে জানান তিনি।

এ ঘটনায় জালালাবাদ থানার ওসি আক্তার হোসেন জানান, পুলিশ প্রশাসন সতর্ক অবস্থানে আছে। ঘটনাস্থল এখন অনেকটা স্বাভাবিক।

শেয়ার করুন