ভারত, পাকিস্তান ও বাংলাদেশের শিল্পীদের লোকগান ঢাকায়

151112061017_bangla_internatioanl_folk_fest_640x360_bbc_nocreditবাংলাদেশের ঢাকায় আজ থেকে শুরু হচ্ছে তিনদিনব্যপী লোকসঙ্গীত উৎসব।

বলা হচ্ছে, লোকজ সঙ্গীত নিয়ে এই প্রথমবার এমন আয়োজন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে বাংলাদেশে।

ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট প্রতিষ্ঠান সান ইভেন্টস এবং বেসরকারি চ্যানেল মাছরাঙা টেলিভিশন ‘ঢাকা ফোক ফেস্ট’নামে এই উৎসবের আয়োজন করেছে।

ঢাকার আর্মি স্টেডিয়ামে এই উৎসবে অংশগ্রহন করবেন বাংলাদেশ, ভারত, পাকিস্তান, চীন আয়ারল্যান্ড এবং মিসরের নামকরা সব লোক শিল্পী।

উৎসবের আয়োজক সান ইভেন্টস ও মাছরাঙা টেলিভিশন এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক অঞ্জন চৌধুরী বলেন, বাংলাদেশের গ্রাম-শহর সর্বত্রই লোকসঙ্গীত অত্যন্ত জনপ্রিয়। এটাকে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে নিয়ে যাওয়ার লক্ষ্যকে সামনে রেখেই তারা এই উদ্যোগ নিয়েছেন। এর মাধ্যমে বাংলাদেশের লোকসঙ্গীতকে বহির্বিশ্বে ছড়িয়ে দেয়াই মূল উদ্দেশ্য।

এখানে লোকজ গানের মৌলিক রূপটাকেই তুলে ধরতে চান আয়োজকরা।

                 ফিউশন আর মূলধারার লোকগান দুটোই থাকছে আয়োজনে।

অঞ্জন চৌধুরি জানান, নতুন প্রজন্মের আগ্রহ ধরে রাখার জন্য ফিউশন কিছুটা থাকবে । তবে গুরুত্ব পাবে মূল ধারার লোকগানই।

উল্লেখ্যযোগ্য শিল্পীদের মধ্যে আছেন, বাংলাদেশের ফরিদা পারভীন, মমতাজ বেগম, বারী সিদ্দিকী, কিরণ চন্দ্র রায়, চন্দনা মজুমদার, শশী মন্ডল,কাঙালিনী সুফিয়া, নাশিদ কামাল, কামাল গৌরব ও বাউলিয়ানা, অর্ণব, জলের গানসহ প্রমুখ।

পাকিস্তান থেকে আবিদা পারভিন ও সাঁই জহুর, ভারত থেকে পাপন, ইন্ডিয়ান ওশেন, নুরান সিস্টার্স, অর্ক মুখার্জী, পবন দাস বাউল, পার্বতী বাউল আসছেন। এছাড়া আয়ারল্যান্ড, চীনও মিশর থেকে শিল্পীরা অংশগ্রহণ করবেন।

এই লোকসঙ্গীত উৎসবকে ঘিরে দারুণ সাড়া পাওয়া গেছে বলে জানাচ্ছেন আয়োজকরা।

দেশী –বিদেশী শিল্পীদের নিয়ে প্রতিবছরই এমন আয়োজন করার চিন্তাভাবনা রয়েছে বলে জানান মাছরাঙা টেলিভিশন ও সান ইভেন্টস এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক অঞ্জন চৌধুরী।

 

 

সূত্র: বিবিসি।

শেয়ার করুন