জামায়াতের বিজ্ঞপ্তিতে মিছিল-সমাবেশ-পিকেটিং

jamat-dainikdhakareport_25801_6005_6594সিলেটের সকাল রিপোর্ট : হরতাল জনজীবনে কোনো প্রভাব না ফেললেও জামায়াতের বিবৃতিতে দাবি করা হয়েছে, ‘স্বতঃস্ফূর্ত’ ও শান্তিপূর্ণ হরতাল পালিত হয়েছে। হরতালে ‘পিকেটিং’ হয়েছে বলেও দাবি দলটির। সিলেট মহানগর জামায়াতের পাঠানো বিবৃতিতে এসব দাবি করা হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, রাষ্ট্র শ্রক্তিকে ব্যবহার করে আলী আহসান মুজাহিদের মত শীর্ষ জামায়াত নেতৃবৃন্দকে ‘হত্যা’ করা যেতে পারে, কিন্তু এদেশে ইসলামী আন্দোলনের সাফল্যের সোনালী সম্ভাবনাকে ধ্বংস করা যাবেনা। ‘সুনির্দিষ্ট অভিযোগ ও প্রমানাদি ছাড়া’ কতিপয় ভুয়া স্বাক্ষীর ‘মিথ্যা বানোয়াট’ স্বাক্ষ্যের উপর ভিত্তি করে যেখানে একদিনের সাজাও দেয়া যায়না। সেখানে মুজাহিদকে মৃত্যুদন্ড দিয়ে ‘বিচার বিভাগের ইতিহাসে এক কালো নজির’ বলেও মন্তব্য দলটির। জামায়াতের সেক্রেটারী জেনারেল আলী আহসান মুহাম্মদ মুজাহিদের মৃত্যুদন্ডর প্রতিবাদে সোমবার কেন্দ্র আহুত দেশব্যাপী সকাল সন্ধ্যা হরতাল শেষে বিজ্ঞপ্তি পাঠায় সিলেট মহানগর জামায়াত।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, নগরীর সুবিদ বাজার, শাহপরান গেইট ও দক্ষিণ সুরমা এলাকাসহ বিভিন্ন স্থানে মিছিল ও সমাবেশে হয়েছে।
নগরীর কোথাও পিকেটিংয়ের খবর পাওয়া না গেলেও বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, পিকেটিং পরবর্তী পৃথক মিছিল সমাবেশে বক্তব্য রাখেন ও উপস্থিত ছিলেন- সিলেট মহানগর জামায়াতের সহকারী সেক্রেটারী মো: শাহজাহান আলী, জামায়াত নেতা মু. আজিজুল ইসলাম, হাফিজ মশাহিদ আহমদ, চৌধুরী আব্দুল বাছিত নাহির, ইঞ্জিনিয়ার শাহজাহান কবির রিপন, এস.এম মনোয়ার হোসেন, ছাত্র শিবির নেতা ইসলাম উদ্দিন, মামুন হোসাইন ও মিয়া মোহাম্মদ রাসেল প্রমুখ।

শেয়ার করুন