গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু : স্বামী পলাতক, লাশ ময়নাতদন্তে

39503-youthগোয়াইনঘাট সংবাদদাতা:গোয়াইনঘাটের পল্লীতে গৃহবধূর মৃত্যূ নিয়ে নানামুখী রহস্য দেখা দিয়েছে। নিহতের স্বজনরা বলছে হত্যা আর স্বামীর পক্ষের লোকজন বলছে আত্মহত্যা। অবশেষে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তে সিওমেক হাসপাতালে প্রেরন করেছে।

বৃহস্পতিবার উপজেলার বহর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহতের নাম মনোয়ারা বেগম (২৫) তিনি উপজেলার বহর গ্রামে মোবারক মিয়ার স্ত্রী ও পার্শ্ববর্তী কদমতলা গ্রামের তৈয়ব আলীল কন্যা।

এ ব্যাপারে ১টা ইউ.ডি মামলা হয়েছে নং (১৯/১৫) তাং-০৫-১১-১৫ইং।

স্থানীয় ও স্বজনদের সাথে আলাপকালে জানা গেছে, বুধবার দিবাগত রাতে স্বামী ও স্ত্রী‘র মধ্যে পারিবারিক কলহ নিয়ে ঝগড়া হয়। বৃহস্পতিবার সকাল ১১টার দিকে হঠাৎ অসুস্থবোধ করেন মনোয়ারা বেগম। এসময় স্বামীর বাড়ীর লোকজন দ্রুত সিলেট রাগিব রাবেয়া হাসপাতালে নিয়ে গেলে তার অবস্থা আশংকা জনক হওয়ায় সাথে সাথে সিওমেক হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক মনোয়ারাকে মৃত ঘোষণা করেন।

পরে লাশ নিয়ে বাড়ীতে চলে আসেন স্বজনরা। একপর্যায়ে গৃহবধুর পিতা বাদী হয়ে সালুটিকর পুলিশ ফাড়িতে লিখিত আবেদন করলে ফাড়ির ইনর্চাজ এস.আই খসরুল আলম বাদল ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে সুরত হাল রির্পোট তৈরী করেন এবং ময়না তদন্তের জন্য সিওমেক হাসপাতালে প্রেরণ করেন।

জানতে চাইলে ফাড়ির ইনর্চাজ এস.আই খসরুল আলম বাদল জানান, লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য সিওমেক হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের রির্পোট অনুযায়ী আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানান তিনি।

শেয়ার করুন