৯ লাখ টাকা চুরি মামলা : খাসদবীর থেকে মোবাইল মেকারসহ ২ জন গ্রেফতার

111সিলেটের সকাল রিপোর্ট : সিলেটের দক্ষিণ সুরমার পিরোজপুরে ৯ লাখ টাকা চুরির মামলার সাথে জড়িত সন্দেহে নগরীর খাসদবীর থেকে মোবাইল মেকারসহ ২ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গ্রেফতারকৃতরা হচ্ছে- জৈন্তাপুর থানার নিজপাট তোয়াসীহাটার মৃত বকুল চন্দ্র ধরের পুত্র বর্তমানে শ্রীমঙ্গল থানার অলংকার নিকেতন ক্যাথলিক মিশন রোডের বাসিন্দা বিকাশ চন্দ্র ধর (২৭) এবং শ্রীমঙ্গল থানার ক্যাথলিক মিশন রোডের ৪ নং ওয়ার্ডের ৪৬৬ নং বাসার গজেন্দ্র পালের পুত্র মোবাইল মেকার পান্না পাল (২৬)। শনিবার গ্রেফতারকৃতদের আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করেছে পুলিশ।

পুলিশ জানায়, গত শুক্রবার জুম্মার নামাজের পর দক্ষিণ সুরমা পুলিশের একটি দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খাসদবীর এলাকায় অভিযান চালিয়ে বিকাশ চন্দ্র ধর ও মোবাইল মেকার পান্না পালকে গ্রেফতার করে। এ সময় পুলিশ তাদের কাছ থেকে একটি লুন্ঠিত মোবাইলসেট উদ্ধার করে।

মামলা তদন্তকারী কর্মকর্তা দক্ষিণ সুরমা থানার উপ পুলিশ পরিদর্শক (এসআই) তাপস চন্দ্র গুহ জানান, ধৃত আসামী বিকাশের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে সন্দিগ্ধ আসামী পান্নাকে গ্রেফতার করা হয়। বিকাশ উক্ত মোবাইলটি মোবাইল মেরামতকারী পান্না‘র নিকট হতে ক্রয় করে। ফলে উল্লেখিত মামলায় তাদেরকে গ্রেফতার দেখিয়ে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত ৭ সেপ্টেম্বর রাত সাড়ে ৩ টার দিকে চোর চক্রের সদস্যরা দক্ষিণ সুরমার পিরোজপুর গ্রামের মোঃ ইজ্জাদ আলীর বাড়ির ঘরের ভেল্টিলেটর ভেঙ্গে ভেতরে প্রবেশ করে। এ সময় চোররা ইজ্জাদ আলীকে ছুরিকাঘাত করে বেঁধে ফেলে। তখন চোররা ইজ্জাদ আলীর মেয়ে মোচ্ছাঃ আয়শা ইজ্জাদ সোমা, তার বোন মোচ্ছাঃ রোকাইয়া ইজ্জাদ সীমা ও ইজ্জাদ আলীর ঘর থেকে ল্যাপটপ, আইফোন, এলসি মোবাইল, ডিজিটাল ক্যামেরা, নগদ টাকা, স্বর্ণালংকার, স্যামসং মোবাইলফোন ও স্যামসং মোবাইলসহ ৮ লাখ ৯৫ হাজার টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে যায়। এ ঘটনায় ইজ্জাদ আলী বাদি হয়ে দক্ষিণ সুরমা থানায় একটি চুরির মামলা দায়ের করেন। নং- ৩ (০৭-০৯-১৪)।

শেয়ার করুন