পুরোপুরি সুস্থ নয় পরাগ

অপহরণকারীদের কাছ থেকে ছাড়া পাওয়ার পর ছয় বছরের পরাগ এখন রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) চিকিৎসাধীন। চিকিৎসকেরা বলেছেন, পরাগ পুরোপুরি সুস্থ হয়ে ওঠেনি।
গত মঙ্গলবার মধ্যরাতে ঢাকার উপকণ্ঠ কেরানীগঞ্জের নয়াবাজার এলাকার খোলামোড়া আঁটিবাজার পাকা রাস্তার পাশ থেকে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করা হয় পরাগ মণ্ডলকে। পরে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ ও স্বজনেরা তাকে স্কয়ার হাসপাতালে ভর্তি করেন।
স্কয়ার হাসপাতালের চিকিৎসক মাসুদুর রহমান গতকাল প্রথম আলোকে বলেন, শিশুটিকে অচেতন অবস্থায় হাসপাতালে আনা হয়। তার অবস্থা বেশ খারাপ ছিল। তবে গতকাল তার অবস্থার উন্নতি হয়েছে। পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর দেখা যায়, শিশুটিকে মাত্রাতিরিক্ত ঘুমের ইনজেকশন দেওয়া হয়েছিল। মাত্রাতিরিক্ত ওষুধ নানা সমস্যার সৃষ্টি করতে পারে। শরীরের বিভিন্ন স্থানে ইনজেকশনের ও হাত-পা বেঁধে রাখার চিহ্ন পাওয়া গেছে।
মাসুদুর রহমান জানান, পরাগের মাথা ও হাতে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। মনে হচ্ছে, পিস্তল বা রিভলবার দিয়ে তার মাথায় আঘাত করা হয়েছে। শরীরে পানিশূন্যতাও দেখা দিয়েছে। এখনো ঘুমের ঘোর রয়েছে। শারীরিক অবস্থার উন্নতির জন্য আরও কিছুদিন নিবিড় পর্যবেক্ষণে রাখতে হবে।
চিকিৎসক জানান, গতকাল সকালে পরাগ ঘুম থেকে জেগে মা-বাবা ও বোনদের দেখার জন্য কাঁদে। এ সময় সে খেতেও চেয়েছিল।

শেয়ার করুন